মহাদেবপুরে আগাম জাতের আমন ধান কাটা ও মাড়াই শুরু

আপডেট: October 26, 2020, 10:17 pm

এম. সাখাওয়াত হোসেন, মহাদেবপুর :


নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলায় আগাম জাতের আমন ধান কাটা ও মাড়াই শুরু হয়েছে। সোনা মাখা ধানের শীষের সমারোহ বলে দিচ্ছে নবান্ন আসছে। এখন আমন মৌসুমের শেষ মুহুর্ত। চলতি আমন মৌসুমে এ উপজেলায় আগাম ধান গোল্ডেন আতব, ব্রি ধান-৭১, ব্রি ধান-৭৫, বি আর-২৬ জাতের ধান চাষ করেছেন কৃষকরা। উপজেলার সুজাইল গ্রামের কৃষক নাজমুল ইসলাম লিটন ও মাদিশহর গ্রমের অখিল চন্দ্রম গোল্ডেন আতব ধান, মহিনগর গ্রামের কৃষক আয়েন উদ্দীন ও ইউপি সদস্য আব্দুল খালেক ব্রি-ধান-৭৫, ইন্দায় গ্রামের সঞ্জয় কুমার বি আর-২৬ ও শেরপুর গ্রামের আসাদুজ্জামান ব্রি ধান-৭৫ চাষ করেছেন। এসব ধান কেটে এই জমিতেই আলু, সরিষাসহ নানা রবি শষ্য চাষ করবেন।
এনায়েতপুর ইউনিয়ন পরিষদের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা আব্দুল মমিন জানান, গোল্ডেন আতব বিঘা প্রতি ১৪ থেকে ১৫ মণ ও ব্রি ধান-৭১, ব্রি ধান-৭৫, বি আর-২৬ ধান বিঘা প্রতি ১৬ থেকে ১৮ মণ হারে ফলন হচ্ছে। গত শনিবার মহাদেবপুর হাটে গোল্ডেন আতব ধান ১ হাজার থেকে ১ হাজার ৫০ টাকা ও অন্যান্য জাতের ধান ৮০০ টাকা থেকে ৮৫০ টাকা দামে বিক্রয় করেছেন কৃষকরা। ধানের দাম ও ফলন ভালো পেয়ে কৃষকরা বেজায় খুশি।
মহাদেবপুর উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবীদ অরুন চন্দ্র রায় জানান, এ বছর চলতি আমন মৌসুমে মহাদেবপুর উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে সর্বমোট ২৮ হাজার ৭ শত ৮০ হেক্টর জমিতে আমন ধান চাষ করেছে কৃষকরা। এর মধ্যে আগাম কয়েকটি জাতের ধান ১৭ হাজার ৫৮০ হেক্টর জমিতে উপশী জাত ও বাকি ১১ হাজার ২০০ হেক্টর জমিতে দেশীয় চিনি আতব জাতের ধান চাষ করা হয়েছে। বড় ধরনের কোন প্রাকৃতিক দূর্যোগ না দেখা দিলে আমন ধানের বাম্পার ফলন হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন উপজেলা কৃষি অফিসার অরুন চন্দ্র রায়।