মহাদেবপুরে নারীর হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার

আপডেট: জানুয়ারি ২৬, ২০২৪, ৯:১৮ অপরাহ্ণ

মহাদেবপুর (নওগাঁ) প্রতিনিধি:নওগাঁর মহাদেবপুরে শয়নকক্ষের ভেতর থেকে রীনা পারভীর (৪৩) নামে এক নারীর হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার করেছে মহাদেবপুর থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২৫ জানুয়ারি) রাতে উপজেলার কুঞ্জবন মাস্টারপাড়া এলাকা থেকে ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত রীনা পারভীন মৃত ইয়াদ আলীর মেয়ে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, কয়েক বছর আগে কুঞ্জবন মাস্টারপাড়ায় রীনা পারভীন নিজস্ব জমিতে দুই ইউনিটের একটি বাসা তৈরি করে একটি ইউনিটে তিনি ও অপর ইউনিটে তার ছোটভাই একরামুল হোসেন স্ত্রী-সন্তান নিয়ে বসবাস করতেন। প্রতিদিনের ন্যায় ঘটনার দিন বৃহস্পতিবার সকালে একরামুল হোসেন ও তার স্ত্রী সন্তানসহ বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। এরপর বাসায় ফিরে রাত ৮টার দিকে একরামুলের স্ত্রী ঘরের দরজা খুলে ঘরের মেঝেতে তার ননদ রীনা পারভীনের হাত-পা বাঁধা মরদেহ দেখে চেঁচামেচি শুরু করেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মহাদেবপুর থানায় নিয়ে আসে।

নিহতের ভাই একরামুল হোসেন বলেন, রাত ৮টার দিকে খবর পেয়ে তিনি বাড়িতে ছুটে আসেন। তার বোনের শ^াসকষ্টের রোগ ছিল। প্রচণ্ড শীতে তার শ^াসকষ্ট বেড়ে যায়। এ জন্য সকালবেলা তাকে না ডেকেই প্রতি দিনের মতো তারা স্বামী-স্ত্রী সন্তানসহ বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। বিকালে তার স্ত্রী বাসায় ফিরে আসেন। কিন্তু তার বোনের কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে রাত ৮টার দিকে ঘরের দরজা খুলে মুখ ও হাত-পা বাঁধা মরদেহ দেখতে পান।

এ বিষয়ে মহাদেবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রুহুল আমিন বলেন, লাশটি উদ্ধার করে শুক্রবার ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। সেইসাথে মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।