মহিলা পরিষদ জেলা শাখার আলোচনা সভা

আপডেট: জুন ১৬, ২০২১, ১০:৪৯ অপরাহ্ণ

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:


বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ রাজশাহী জেলা শাখার উদ্যোগে নিজস্ব কার্যালয়ে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় কমিটির মুক্তিযোদ্ধাদের মৃত্যুর পর গার্ড অব অনার দেয়ার ক্ষেত্রে নারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার(ইউ এন ও) বিকল্প ব্যক্তি নির্ধারণের অসাংবিধানিক ও অগ্রহণযোগ্য সুপারিশের প্রতিবাদে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। বুধবার (১৬ জুন) সকাল ১১টায় এই সভায় জেলার নেতৃবৃন্দ মনে করেন সংসদীয় কমিটির সুপারিশ নারীর জন্য এক বড় অশনি সংকেত । তাই এই সুপারিশের তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানাচ্ছে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ রাজশাহী জেলা শাখা। যা সংবিধানে চার মূলনীতির পরিপন্থী ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী। আমরা জানি যে বাংলাদেশ নারীর ক্ষমতায়নের ক্ষেত্রে অনেক দেশের চাইতে এগিয়ে থাকার গর্ববোধ করে। ঠিক তখনই এই মধ্যযুগীয় চিন্তাভাবনা নারীকে পিছন দিকে টেনে নামানোর অপচেষ্টা। এই ধরনের সুপারিশ একজন নারীর জন্য যেমন অবমাননাকর ঠিক একইভাবে একজন মুক্তিযোদ্ধার জন্য অপমানজনক। একটি স্বাধীন সার্বভৌম নারী-পুরুষের সমতা পূর্ণ প্রগতিশীল সমাজ ও রাষ্ট্র গঠনের জন্যই মুক্তিযোদ্ধারা তাদের জীবনবাজি রেখে এই মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিলেন। সংসদীয় কমিটির এই ধরনের সুপারিশ জাতির জন্য দুর্ভাগ্যজনক। তাই জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রণালয়ের এই সুপারিশ বাতিল ঘোষণা করার জোর দাবি জানাচ্ছি।