মাংকপিক্স নয়িে সর্তক করলনে ব্রটিশি বজ্ঞিানীরা

আপডেট: মে ২২, ২০২২, ১:২৬ অপরাহ্ণ


সোনার দশে ডস্কে :


করোনা মহামাররি মধ্যইে ইউরোপে মাংকপিক্স ভাইরাসে শনাক্ত হচ্ছনে অনেকে গত কয়কেদনিে যে হারে শনাক্ত হয়েছে তা নয়িে সর্তক করছেনে বজ্ঞিানীরা। তারা বলছনে, সামনে নতুন করে আরও সংক্রমতি রোগী শনাক্ত হতে পারনে।

ইউরোপে ইতোমধ্যে ৯০ জন রোগী শনাক্ত হয়ছেনে। যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রলিয়াএবং ব্রটিনেওে মাংকপিক্স রোগী শনাক্ত। এটি আগে পশ্চমি আফ্রকিার মধ্যইে ছলি। হঠাৎ আফ্রকিার বাইরে ছড়িয়ে পড়ায় স্বাভাবকিভাবে দখেছনে না চকিৎসকরা।।

এ নয়িে যুক্তরাজ্যরে ক্যামব্রজি বশ্বিবদ্যিালয়রে রোগ বশিষেজ্ঞ র্শালট হ্যামার বলনে, ‘আমি নশ্চিতি যে সামনে আরও শনাক্ত দখেতে যাচ্ছি স্বাস্থ্য র্কতৃপক্ষ সক্রয়িভাবে সংক্রমিতদরে খুঁজছনে। মাংকপিক্সরে ইনকউিবশেনরে সময়কাল এক থকেে তনি সপ্তাহরে মধ্যে হয়ে থাকে যারা প্রার্দুভাবরে প্রথমদকিে আক্রান্তদরে সংর্স্পশে এসছেনে, তাদরে মধ্যে সংক্রমণ দখেতে পাবো।

তবে নটংিহ্যাম বশ্বিবদ্যিালয়রে অধ্যাপক কথি নলি বলনে, ভাইরাসটকিে আপাতত প্রাণঘাতী মনে হচ্ছে না।
গত কয়কে সপ্তাহে ব্রটিনে,ফ্রান্স, র্জামান  বিলজেয়িাম, ইতালি র্পতুগাল, স্পনে, সুইডনে, কানাডা, অস্ট্রলেয়িা ও যুক্তরাষ্ট্র এবং সবশষে ইসরায়লেে মাংকপিক্সে আক্রান্ত শনাক্ত হয়য়েছে ধারণা করা হচ্ছে রোগটি বভিন্নি দশেে হয়ত ছড়িয়ে পড়েছে
উপর্সগ ও চকিৎিসা

স্মলপক্সরে মতোই উপর্সগ দখো যায় মাংকপিক্স আক্রান্তদরে মধ্যে যদওি এই রোগরে ভয়াবহতা স্মলপক্সরে তুলনায় কম। উপর্সগগুলোর মধ্যে রয়েছে জ্বর, মাথাব্যথা, পশেরি ব্যথা, পঠিে ব্যথা, ক্লান্ত  কাঁপুনি।

মাংকপিক্সে আক্রান্তদরে নর্দিষ্টি ওষুধ বা চকিৎিসা পদ্ধতি নইে। পরসিংখ্যান অনুসারে  স্মলপক্সরে টকিা ৮০ শতাংশ ক্ষত্রেে মাংকপিক্সরে বিরুদ্ধে কাজ করে।
তথ্যসূত্র: দ্য র্গাডয়িান, বাংলাট্রবিউিন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ