মেসির সঙ্গে কথা বলতে লজ্জা পেতেন নেইমার

আপডেট: জুলাই ৪, ২০১৭, ১২:৪০ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


নিজের আদর্শদের সঙ্গে খেলেই আজকের অবস্থানে এসেছেন নেইমার। ফাইল ছবি

‘এমএসএন’ ত্রয়ী যেকোনো প্রতিপক্ষের জন্যই আতঙ্কের নাম। নেইমার-মেসি-সুয়ারেজ রসায়নে একের পর এক শিরোপা জিতেছে বার্সেলোনা। তারা বার্সার আক্রমণভাগের সর্বকালের সেরা ‘ত্রিফলা’ কি না, এ নিয়েও আলোচনা হয় ইদানীং। এর পেছনে তিনজনের দারুণ বন্ধুত্বই সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছে। তবে শুরুতে নাকি তাদের সম্পর্কটা এমন ছিল না। বার্সেলোনায় আসার পর প্রথম প্রথম তো মেসির সঙ্গে কথা বলতেই লজ্জা পেতেন নেইমার!
ব্রাজিলের এক টেলিভিশন অনুষ্ঠানে এমন মজার কথা শোনালেন নেইমার। এখন গলায়-গলায় ভাব হলেও প্রথমে নাকি লিওনেল মেসির মতো তারকা তাঁর সতীর্থ, এটাই বিশ্বাস হতো না নেইমারের। ২১ বছরের নেইমারের চোখে মেসি যে তখন অন্য গ্রহের ফুটবলার। নেইমারের কণ্ঠে শোনা গেল একজন মেসি-ভক্তের মোহ, ‘শুরুতে তো তাদের সঙ্গে কথা বলতেই লজ্জা পেতাম আমি। তাঁরা সবাই খেলাটির আদর্শ, আমার আদর্শ। আর আমি মাত্র নতুন এসেছি, খুবই তরুণ।’
এমন অভিজ্ঞতা তাঁর জন্য কতটা বড় ছিল, সেটা বোঝালেন এভাবে, ‘আমি যখন প্রথমবার বার্সেলোনার ড্রেসিংরুমে গেলাম, এক পাশে তাকিয়ে দেখি মেসি। অন্য পাশে জাভি, ইনিয়েস্তা, পিকে, আলভেজ। আমার মনে হয়েছিল, আমি বোধ হয় ভিডিও গেমের ভেতর ঢুকে পড়েছি। যে আমি একসময় ভিডিও গেমে তাঁদের সঙ্গে খেলতাম, তাঁদের সঙ্গেই সত্যি সত্যি খেলার সুযোগ পেয়ে গেলাম!’
সেসব দিন বহু আগেই পেরিয়ে গেছেন নেইমার। মেসি ও সুয়ারেজের সঙ্গে দুটি লা লিগা ও একটি চ্যাম্পিয়নস লিগও জেতা হয়ে গেছে তাঁর। তবুও শুরুর সে অভিজ্ঞতা এখনো তাঁর কাছে সুখস্মৃতি হয়েই আছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ