রাজশাহীতে উদ্যোক্তাদের মাঝে ৬১ লাখ টাকার চেক বিতরণ

আপডেট: মে ৫, ২০২১, ৯:৩২ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:


প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত প্রণোদনা প্যাকেজ এর আওতায় রাজশাহী জেলার ১৩ জন উদ্যোক্তাদের মাঝে মোট ৬১ লক্ষ টাকার ঋণের চেক বিতরণ করা হয়। বুধবার (৫ মে) সকাল সাড়ে ১০ টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে উদ্যোক্তার মাঝে ঋণের চেক বিতরণ করেন জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল। অনুষ্ঠানটি রাজশাহী জেলার বিসিক কার্যালয়ের উপ মহাব্যবস্থাপক জাফর বায়েজীদ এর সভাপতিত্বে ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মুহাম্মদ শরিফুল হক এর সঞ্চালনায় পরিচালিত হয়।
উদ্যোক্তাদের উদ্দেশ্যে জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল বলেন, ক্ষুদ্র, কুটির ও মাঝারি (সিএমএসএমই) শিল্পখাতে দেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জন ও কর্মসংস্থান সৃষ্টি তথা দারিদ্র্য বিমোচনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। নভেল করোনা পরিস্থিতির কারণে শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর পক্ষে ঋণ পরিশোধ, জনবলের বেতন ভাতাদি এবং অন্যান্য দায়-দেনা পরিশোধ করা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে। এর প্রভাব সবচেয়ে বেশি পড়েছে ক্ষুদ্র, কুটির ও মাঝারি শিল্পের উপর। এ পরিস্থিতি মোকাবেলায় দেশের অর্থনীতি সচল রাখতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এসব শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য স্বল্প সুদে (৪%) ওয়ার্কিং ক্যাপিটাল সুবিধা প্রদানের লক্ষ্যে মোট ২০ হাজার কোটি টাকার ঋণ প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন।
জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল আরও জানান, আজকে (৫ মে) রাজশাহী জেলার ১৩ জন উদ্যোক্তাদের মাঝে মোট ৬১ লক্ষ টাকার ঋণের চেক বিতরণ করা হলো। ভবিষ্যতে পর্যায়ক্রমে এই ঋণ কর্মসূচি’র অর্থ সঠিকভাবে কাজে লাগিয়ে করোনায় ক্ষতি পুষিয়ে নেয়ার জন্য উদ্যোক্তাদের আহবান জানান জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল।
বিশেষ অতিথি ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. নজরুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (এনডিসি) আব্দুল্লাহ আল রিফাত, সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট অভিজিত সরকার, সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট সুমন চৌধুরী প্রমুখ।
রাজশাহী জেলার বিসিক কার্যালয়ের উপমহাব্যবস্থাপক জাফর বায়েজীদ জানান, বিসিক ১৯৫৭ সাল থেকেই ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প খাতের উদ্যোক্তাদেরকে বিভিন্ন ধরনের ঋণ সহায়তা প্রদান করে আসছে।
তিনি আরও জানান, করোনা পরিস্থিতিতে পল্লী এলাকার প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে লক্ষ্য কুটির, ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প খাতে আর্থিক প্রণোদনা প্যাকেজের আওতায় প্রধানমন্ত্রীর অনুদান বাবদ বিসিকের অনুকূলে বরাদ্দকৃত প্রাথমিকভাবে ৫০ কোটি টাকা’র মধ্যে রাজশাহী জেলায় মোট ২ কোটি টাকা ঋণ প্রদান করা হচ্ছে। ভবিষ্যতে সরকার হতে প্রদত্ত অনুদান বাবদ বরাদ্দকৃত টাকা উদ্যোক্তাদেরকে ঋণ সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে দেশের আর্থ-সামাজিক অবস্থার উন্নয়নে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখা সম্ভব হবে জানান তিনি।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মুহাম্মদ শরিফুল হক জানান, করোনার সংক্রমণ বিস্তাররোধে সরকারের সৃষ্ট লকডাউনের ফলে ব্যবসায়ী ও উদ্যোক্তাগণ সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। তাদের এই ক্ষতি কিছুটা পুষিয়ে নেয়ার লক্ষ্যে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রণোদনা প্যাকেজ ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প প্রতিষ্ঠানের জন্য আশীর্বাদ স্বরূপ।
কাটাখালী পৌর এলাকার সম ফ্যাশানের স্বত্বাধিকার সাবিনা জানান, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষিত প্যাকেজের টাকা পেয়ে আমি অত্যন্ত খুশি। রাজশাহী জেলা প্রশাসন ও বিসিক এর সার্বিক সহযোগিতায় ১০ লাখ টাকার ঋণের চেক হাতে পেলাম। সে জন্য আমি তাদের আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।