রাজশাহীতে দুই জেএমবি সদস্যসহ গ্রেফতার ৫০

আপডেট: মার্চ ১৫, ২০১৭, ১২:১৪ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক



রাজশাহীতে দুই জেএমবি সদস্য ও ১০ জন জামায়াত-শিবিরকর্মীসহ মোট ৫০ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গত সোমবার দিবাগত রাত থেকে শুরু করে মঙ্গলবার পর্যন্ত রাজশাহী নগরী, বাগমারা, পুঠিয়া ও গোদাগাড়ীতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এর মধ্যে বাগমারা ও পুঠিয়া থেকে দুই জেএমবি সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়।
গ্রেফতারকৃত দুই জেএমবি সদস্য হচ্ছে, বাগমারার জুগিপাড়া ইউনিয়নের শান্তপাড়া এলাকার মৃৃত জয়নাল সরদারের ছেলে আব্দুল কুদ্দুস (৪৪) ও পুঠিয়ার ভালুকগাছী ইউনিয়নের পশ্চিমভাগ গ্রামের মৃত জসিম উদ্দিনের পুত্র আব্দুল ওহাব।
ওসি নাসিম আহম্মেদ বলেন, আবদুল কুদ্দুস নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গিসংগঠন জেএমবি তালিকার ১৮ নম্বর সদস্য। ২০০৪ সালে জেএমবির শীর্ষ নেতা সিদ্দিকুল ইসলাম ওরফে বাংলা ভাইয়ের হাত ধরে জঙ্গি সংগঠনে যোগ দেন আব্দুল কুদ্দুস। বাগমারা এলাকায় সাধারণ মানুষকে ধরে নিয়ে গিয়ে হত্যা, গুম ও নির্যাতন চালাতে বাংলা ভাইকে সহযোগিতা করে কুদ্দুস।
এদিকে পুঠিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) রাকিবুল হাসান জানান, রাজশাহী জেলার পুঠিয়া উপজেলার থানার এসআই রইজ ও তার সঙ্গীয় ফোর্স সোমবার রাতে অভিযান চালিয়ে ভালুকগাছী ইউনিয়নের পশ্চিমভাগ গ্রামের মৃত জসিম উদ্দিনের পুত্র জেএমবির সদস্য আব্দুল ওহাবকে গ্রেফতার করে।
অপরদিকে পুলিশের একটি দল একই উপজেলার বানেশ্বর এলাকায় অভিযান চালিয়ে বালিয়াঘাটি গ্রামের আব্দুস সালামের পুত্র সোহেল রানা (২৩), বানেশ্বর থান্দারপাড়া গ্রামের আব্দুল লতিবের পুত্র নেওয়াজ ওরফে স্বাধীন (২৮), চারঘাট উপজেলার এসকে বাদল এলাকার আব্দুস সামাদের পুত্র রকিবুল ইসলাম (১৯) এবং বাঘা উপজেলার রুস্তমপুর এলকার হাতেম আলীর পুত্র হাবিবুর রহমানকে (২২) গ্রেফতার করে।
রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে সন্ত্রাস ও নাশকতার অভিযোগে ছাত্রশিবির সভাপতিসহ ২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে, গোদাগাড়ী উপজেলার পাকড়ী ইউনিয়নের ছাত্র শিবিরের সভাপতি ও পাকড়ী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান জালাল উদ্দীনের ছেলে আব্দুর রব (২৭) ও গোদাগাড়ী পৌর এলাকার মহিশালবাড়ী গ্রামের মৃত মোহাম্মদ আলীর ছেলে ও ২ নং ওয়ার্ড জামায়াতের সভাপতি রজব আলী। গতকাল সোমবার দিবাগত রাতে ২টার দিকে পাকড়ী ঝিনা ও মহিশালবাড়ী গ্রাম থেকে এ দুই জনকে গ্রেফতার করা হয়। গোদাগাড়ী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হিপজুর আলম মুন্সি বলেন, গ্রেফতারকৃতরা সন্ত্রাস ও নাশকতার সঙ্গে জড়িত। তাদেরকে বাসুদেবপুর ইউনিয়নের পাহাড়পুর নামাজ গ্রামের সন্ত্রাস ও নাশকতা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে মঙ্গলবার সকালে জেল হাজতে পাঠানো হয়।
এদিকে রাজশাহী নগরীতে পুলিশের অভিযানে ৪ জন জামায়াত-শিবির কর্মীসহ মোট ৪২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার নগরীর চারটি থানা ও ডিবি পুলিশ বিভিন্নস্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।
অভিযানে পুলিশ মনিরুল ইসলাম জনি (২৪), জার্জিস আলী (৪২), মো. রানা (২৫) ও জসিম উদ্দিন (৪৫) নামের চার জন জামায়াত-শিবির কর্মীকে গ্রেফতার করে। অন্যদের মধ্যে ২২ জন ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি, তিন জন মাদকদ্রব্যসেবী ও অন্যান্য বিভিন্ন অপরাধে ১৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন নগর পুলিশের মুখপাত্র সিনিয়র সহকারী কমিশনার ইফতে খায়ের।
প্রতিবেদনটি তৈরিতে সহায়তা করেছেন পুঠিয়া ও গোদাগাড়ী প্রতিনিধি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ