রাজশাহীতে ২০ মিলিমিটার বৃষ্টি, আম-লিচুর উপকার

আপডেট: মে ১১, ২০২১, ১০:১২ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:


রাজশাহীতে ২০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। মঙ্গলবার (১১ মে) ১২ টা ৩৫ মিনিটে শুরু হয়েছে ৩টা ১২ মিনিট পর্যন্ত এই বৃষ্টিপাত হয়েছে। তবে রাজশাহী পুঠিয়া উপজেলায় শিলা বৃষ্টি হয়েছে। এতে পাটসহ কিছু ফসলের ক্ষতি হয়েছে। তবে আম-লিচুর উপকার হয়েছে।
জানা গেছে, দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে রাজশাহীতে বৃষ্টিপাত শুরু হয়। অনেকটাই ভ্যাপশা গরমের পরে প্রশান্তির বৃষ্টি নামে। তবে এই প্রশান্তির বৃষ্টি ইদের কেনা-কাটায় বাগড়া দিয়েছে। হঠাৎ করেই বৃষ্টিতে ভিজেছেন ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়ে। কেউ কেউ বৃষ্টি থেকে রক্ষা পেতে দোকানে আশ্রয় নিয়েছেন। কেউ আবার বৃষ্টিতে গা ভাসিয়েছেন। এমন কেনাকাটার চিত্র বৃষ্টি চলাকালীন সময়ে নগরীর সাহেববাজার এলাকায় দেখা গেছে।
শরিফা খাতুন নামের এক ক্রেতা জানান- ‘অনেক মানুষের চাপ দোকানগুলোতে। অনেকটাই গাদাগাদি করে কেনা-কাটা করছেন মানুষ। দোকানগুলোর সামনে দাঁড়িয়ে বৃষ্টির ঝাপটায় ভিজে গেছি।’
ফুটপাতে বিক্রেতা রফিকুল ইসলাম কালু জানান- ‘অচমকা বৃষ্টিতে ভিজে গেছি। কিছু মাল-সামানও ভিজে গেছে। তার পরেও পলিথিন দিয়ে দ্রুত ঢেকেছি। তিনি আরও বলেন, আজ তেমন ব্যবসা করতে পারিনি দুপুরের সময়ে। থেমে থেমে কয়েক দফা বৃষ্টিতে ক্রেতারা দাঁড়াতে পারেনি দোকানে।’
অন্যদিকে, জেলা পুঠিয়া উপজেলায় শিলা বৃষ্টি হয়েছে। বেলা ১২ টার দিকে শুরু হওয়া শিলা বৃষ্টিতে আম, লিচুসহ বিভিন্ন ফসলের ক্ষতি হয়েছে। বৃষ্টি চলাকালে গাছ থেকে অনেক আম ঝড়ে গেছে বলে জানা গেছে।
রাজশাহী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক আব্দুল আওয়াল জানান- পুঠিয়ার ভাল্লুকগাছি ও শীলমারী এলাকার কিছু অংশে শিলাবৃষ্টি হয়েছে। তবে এই এলাকার পাট ক্ষেতের উপর দিয়ে শীলা বৃষ্টি হয়েছে। এই মুহূর্তে ক্ষতির পরিমান জানা যায়নি। তবে এই বৃষ্টিতে আম ও লিচুর ব্যাপক উপকার হয়েছে বলে এই কর্মকর্তা জানান।
রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের পর্যবেক্ষক কামাল উদ্দিন জানান, ২০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। আকাশ মেঘাচ্ছন্ন হয়ে আছে। যেকোন সময় বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া সোমবার (১০ মে) রাতে দশমিক ৩ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। এছাড়া দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিলো ৩১ দশমিক ৫ ডিগ্রি ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিলো ২২ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।