রাজশাহী অঞ্চলে স্থগিতকৃত ইউপি নির্বাচন আজ

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২২, ১২:১৯ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:


রাজশাহী অঞ্চলে স্থগিতকৃত ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন আজ সোমবার (৭ ফেব্রুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে। রাজশাহী তানোর উপজেলার সরনজাই ইউনিয়নে, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার ভোলাহাটে ও নওগাঁর পত্মীতলা উপজেলায় স্থগিত হওয়া কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হবে।

তানোর প্রতিনিধি জানান, স্থগিত হওয়া রাজশাহীর তানোর উপজেলার সরনজাই ইউপিতে ভোট গ্রহনের সকল প্রস্তুতি সম্পর্ণ করেছে নির্বাচন কমিশন।

তানোর উপজেলা নির্বাচন অফিসার গোলাম মোস্তফা বলেন, গত ১০ নভেম্বর ভোটের আগের দিন আদালতের নির্দেশে স্থগিত হওয়া সরনজাই ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সুষ্ঠ ও সুন্দর পরিবেশে সম্পর্ণ করতে সকল প্রস্ততি সম্পূর্ন করা হয়েছে।

তিনি বলেন, বিজিবিসহ ২ জন ভ্রাম্যমান নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ৯টি কেন্দ্র টহল দিবেন। আনছারসহ পুলিশ প্রশাসন কেন্দ্রে পারায় থাকবেন। দুপুরের পর সকল কেন্দ্রে পিজাইডিং অফিসারগন নির্বাচনী সামগ্রীসহ গেছেন।

তিনি আরো বলেন, ব্যালট পেপার সকালে পৌঁছে দেয়া হবে এবং সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত একটানা ভোট গ্রহন চলবে । কেন্দ্রেই ভোট গননার পর স্ব স্ব কেন্দ্রেই ফলাফল ঘোষনা দিয়ে ফিরবে পিজাইডিং কর্মকর্তাগন।

সরনজাই ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে ৪জন, সংরক্ষিত ৩টি নারী আসনে প্রার্থী হয়েছেন ১০জন এবং ৯টি সদস্য পদে ২৩জন প্রার্থী অংশগ্রহণ করেছেন এই নির্বাচনে।

ঋণ খেলাপীর কারনে বর্তমান সরনজাই ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ’ লীগ সভাপতি নৌকার দলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মালেকে প্রার্থীতা উচ্চ আদালতের রায়ে বাতিল হওয়ায় ভোটের আগের দিন নির্বাচন স্থগিত করা হয়।

আপিলেও তার প্রার্থীতা বাতিল হওয়ায় নৌকার প্রার্থী ছাড়াই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে সরনজাই ইউপিতে।
চেয়ারম্যান পদে লড়ছেন আ’ লীগ সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী সাইদুর রহমান সাইদ (মটরসাইকেল), বিএনপি সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী মোজাম্মেল হক খান (চশমা), স্বতন্ত্র প্রার্থী মতিউর রহমান খান (আনারস) এবং ইসলামী আন্দলন বাংলাদেশ (পাতপাখা) প্রতিকের দলীয় প্রার্থী সাফিউল ইসলাম।

সরনজাই ইউপিতে মোট ভোটার ৮হাজার ১শ’ ২১জন, নারী ভোটার ৪,হাজার ১শ’ ৫৩ জন ও পুরুষ ভোটার ৩ হাজার ৯ শ’ ৫৮ জন। ৯টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে।

তানোর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাকিবুল হাসান বলেন, নির্বাচনী নিরাপ্তায় পুলিশের পক্ষ থেকে সকল প্রস্তুতি সম্পূর্ণ করা হয়েছে। তিনি বলেন বিজিপি, পুলিশ ও আনসার সদস্যরা কেন্দ্র মোতায়েন ছাড়াও একাধীক টিমসহ নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেটগন টহল দিবেন।

এদিকে ভোলাহাট প্রতিনিধি জানান, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট উপজেলার ২৬ ডিসেম্বর ৪র্থ ধাপে অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদের সাধারণ নির্বাচনে স্থগিত হওয়া ভোলাহাট উপজেলার ৫ টি ভোট কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ হবে ৭ ফেব্রুয়ারি। ভোলাহাট উপজেলায় গত ২৬ ডিসেম্বর ৪টি ইউনিয়নে ভোট গ্রহণ করা হয়।

এদিন অনিয়মের কারণে ভোলাহাট ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের রামেশ্বর পাইলট ইনস্টিটিউশন, গোহালবাড়ী ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের খালেআলমপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দলদলী ইউনিয়নের ১,৩ ও ৪ নং ওয়ার্ডের নাজিরপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়,ময়ামারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও আদাতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ বন্ধ ঘোষণা করা হয়। বন্ধ ভোট কেন্দ্রে ৭ ফেব্রুয়ারি ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. তাসিনুর রহমান বলেন, ২৬ ডিসেম্বর স্থগিত ঘোষিত ভোলাহাট উপজেলার ৫ টি ভোট কেন্দ্রে ৭ ফেব্রুয়ারি সুষ্ঠুভাবে ইউনিয়ন পরিষদের ভোট গ্রহণে প্রয়োজনীয় সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে ।

পত্নীতলা প্রতিনিধি জানান, নওগাঁর পত্নীতলায় স্থগিত হওয়া ৪টি ইউনিয়নের ৫ কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ সোমবার (৭ ফেব্রুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে। উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. জাহিদুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, কেন্দ্রগুলো হচ্ছে ঘোষনগর ইউপিতে দুইটি, কৃষ্ণপুর একটি, আকবরপুরে একটি ও পত্নীতলায় একটি। উল্লেখ্য, গত ৫ জানুয়ারি ৫ম ধাপে নির্বাচনে উপজেলার ১১টি ইউপিতে ভোট হয়। নির্বচনী সহিংসতা ও বিশৃংখলার কারণে ওই চার ইউপির ৫টি ভোট কেন্দ্রের ফলাফল স্থগিত করে উপজেলা নির্বাচন অফিস।

পত্নীতলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লিটন সরকার বলেন, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা অনুযায়ী ভোটের দিন পর্যন্ত পর্যাপ্ত আইন-শৃঙ্খলার বাহিনীর সদস্যরা সতর্ক অবস্থানে থাকবেন। তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করে আরো জানান, শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ