রাজশাহী পরিচ্ছন্ন নগরী হওয়ায় করোনা সংক্রমণ কম

আপডেট: নভেম্বর ২৮, ২০২০, ৮:৫৬ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক :


রাজশাহী নগরী পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার ক্ষেত্রে রোল মডেল। আর এ পরিচ্ছন্নতার কারণে বিভাগীয় শহর হওয়ার পরেও এখানে করোনা সংক্রমণ কম-এমনটায় মন্তব্য করেছেন, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব আবদুল মান্নান। গতকাল শনিবার (২৮ নভেম্বর) নগরীর সার্কিট হাউজ সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত বিভাগীয় স্বাস্থ্য বিষয়ক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন তিনি। এ সময় তিনি পরিচ্ছন্ন নগরীর রুপকার সিটি মেয়র এএইচ খায়রুজ্জামান লিটনকে ধন্যবাদ জানান।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় ফলপ্রসু টিকা না আসা পর্যন্ত আমাদের মাস্ক ব্যবহারে গুরুত্ব দিতে হবে। রাজশাহীতে করোনায় ৫১ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এমন কোন মৃত্যুই সরকার চায় না। প্রধানমন্ত্রী চায় না। আর এজন্য সরকার কাজ করে যাচ্ছে। পৃথিবীতে মাত্র ১৬-১৭ টা দেশ করোনার ভ্যাক্সিন আবিষ্কার করেছে। ইফেকটিভ ভ্যাক্সিন পেতে আমরা ৭ টি দেশের সঙ্গে যোগাযোগ করছি। আমরা ভ্যাক্সিন পেতে অক্সফোট বিশ^বিদ্যালয়ের সঙ্গেও যোগাযোগ করছি। সরকার এ পর্যন্ত প্রায় ১৬শ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। আমরা আশা করছি সামনে বছরের জানুয়ারি অথবা ফ্রেবুয়ারিতে অক্সফোডের এ ভ্যাক্সিন পেয়ে যাবো।
তিনি আরো বলেন, স্বাস্থ্য সেবার উন্নয়নে সরকার আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছেন। বর্তমান সরকারের আমলে স্বাস্থ্য খাতের অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে। এ সরকারের আমলে প্রায় ৩০ হাজার নার্স নিয়োগ দেয়া হয়েছে। চিকিৎসক নিয়োগ দেয়া হয়েছে। স্বাস্থ্যখাতের উন্নয়নে ৫০ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প চলছে।
এ সময় তিনি শাহমখদুম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শিক্ষার্থীদের প্রতি হামলার বিষয়ে বলেন, শিক্ষার্থীদের প্রতি কোন ধরনের হামলা আকাঙ্খিত নয়। এ বিষয়টি তদন্তে ঢাকা থেকে একটি টিম এসেছে। তদন্ত করে অপরাধীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
তিনি আরো বলেন, সরকার কোন জায়গাতেই অনিয়ম, দুনীর্তি, অব্যবস্থাপনার সঙ্গে আপোস করবে না। ব্যাঙ্গের ছাতারমতো গজিয়ে ওঠা লাইসেন্সবিহীন হাসপাতাল, ডায়াগনস্টিক সেন্টার, র্ফামেসীগুলোকে কোন ছাড় না দিয়ে সততা, আন্তরিকতা ও দেশপ্রেমের সঙ্গে কাজ করার জন্য স্থানীয় প্রশাসন ও সিভিল সার্জনদের প্রতি আহ্বান জানান।
এ মতবিনিময় সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী বিভাগীয় পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক, রাজশাহী জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) শরিফুল হকসহ রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের কর্মকর্তা, রাজশাহী জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা, রাজশাহী সিভিলসার্জনসহ বিভাগীয় জেলার সিভিলসার্জনরা উপস্থিত ছিলেন। রাজশাহীর করোনা পরিস্থিতির পেজেন্টেশন করেন, রাজশাহী বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. গোপেন্দ্র নাথ আচার্য্য।