রাজস্ব রক্ষায় মুক্তিযোদ্ধাদের দায়িত্ব পালনের আহ্বান

আপডেট: ডিসেম্বর ১৯, ২০১৬, ১২:০৩ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



দেশের স্বাধীনতা রক্ষার মতো রাজস্ব রক্ষায় দায়িত্ব পালনের জন্য মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের সিনিয়র সচিব ও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমান। গত শনিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বীর মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের পরিবারবর্গের সংবর্ধনা ও পুর্নমিলনী অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান। মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) যৌথভাবে এ সংবর্ধনার আয়োজন করে।
এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, দেশের উন্নয়নের অক্সিজেন রাজস্ব। এ অক্সিজেন আহরণে এনবিআর নিরলসভাবে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। রাজস্ব আহরণের মাধ্যমে দেশের সকল উন্নয়ন কর্মকা- পরিচালিত হয়। বিশেষ করে পদ্মাসেতুর মতো বড় বড় প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে। মুক্তিযোদ্ধারা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আহ্বানে জীবন বাজি রেখে দেশকে স্বাধীন করেছেন।
তিনি বলেন, স্বাধীন এ দেশকে গড়তে ও দেশের উন্নয়নের চাকা সচল রাখতে প্রচুর রাজস্ব প্রয়োজন। মুক্তিযোদ্ধারা যেভাবে জীবন বাজি রেখে দেশকে রক্ষা করেছেন রাজস্ব রক্ষায়ও তাদের দায়িত্ব পালন করতে হবে। মুক্তিযোদ্ধাদের উন্নয়ন অংশীজন হতে রাজস্ব আহরণে অংশগ্রহণ করতে হবে। মানুষ যাতে আয়কর, ভ্যাট ও শুল্ক ফাঁকি না দেয়, যথাযথভাবে পরিশোধ করে সেজন্য বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে।
তিনি আরও বলেন, এনবিআর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য বিশেষ সুবিধা দিয়ে আসছে। এরমধ্যে গেজেটেড যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের গাড়ির রেজিস্ট্রেশন ও ফিটনেস নবায়নকালে প্রদেয় উৎসে অগ্রিম আয়কর অব্যাহতি দিয়েছে। এছাড়া চলতি অর্থবছর গেজেটেড যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের করমুক্ত আয়সীমা ৪ লাখ ২৫ হাজার টাকা পর্যন্ত নির্ধারণ করেছে। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- ডিএনসিসি মেয়র আনিসুল হক, ডিএসসিসি মেয়র সাঈদ খোকনসহ প্রায় তিন হাজার মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যরা।