রাণীনগরের নবাগত ইউএনও শাহাদাত হুসেইন একটি মডেল উপজেলা গড়ার প্রত্যয় নিয়ে কাজ করতে চান

আপডেট: মে ২০, ২০২২, ১০:১৯ পূর্বাহ্ণ

আব্দুর রউফ রিপন, নওগাঁ:


নওগাঁর রাণীনগরে নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদান করেছেন শাহাদাত হুসেইন। গত বুধবার (১৮ মে) তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে অফিস কার্যক্রম শুরু করেছেন। তিনি সদ্য বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুশান্ত কুমার মাহাতোর পদোন্নতি জনিত বদলীর কারণে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদান করেছেন।

রাজশাহীর বাগমারা উপজেলায় জন্ম নেওয়া শাহাদাত হুসেইন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগ থেকে অনার্স ও মাস্টার্স শেষে ৩৪তম বিসিএস-এর মাধ্যমে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসে যোগদান করেন। এরপর তিনি উচ্চ শিক্ষা গ্রহণের জন্য “প্রাইম মিনিস্টার ফেলোশিপ” নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে গমন করেন।

সেখানে তিনি স্বনামধন্য কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে “ডেভেলপমেন্ট পলিসি” বিষয়ে ডিস্টিংকশন মার্কসসহ উত্তীর্ণ হন। রাণীনগর উপজেলাই হচ্ছে শাহাদাত হুসেইনের প্রথম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে কর্মস্থল।

এক আলাপচারিতায় তিনি বলেন, আমি সরকারের সামান্য এক কর্মচারীমাত্র আর এই উপজেলার জনসাধারণের সেবক। সরকার তার এজেন্ডা সঠিক ভাবে এই উপজেলায় বাস্তবায়ন করতে আমাকে এই উপজেলায় একজন সেবক হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন।

আমি এই উপজেলা প্রশাসনের সকল দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, উপজেলার সুধীমহল ও সাধারন মানুষদের সার্বিক সহযোগিতা নিয়ে সরকারের অঙ্গিকার প্রত্যন্ত এলাকায় শহরের সকল সুযোগ-সুবিধা পৌছে দিয়ে এই উপজেলাকে একটি আধুনিক মানের মডেল উপজেলা হিসেবে সবার কাছে তুলে ধরতে চাই। এই কারণে আমি এই উপজেলার সকল স্তরের মানুষের কাছ থেকে গঠনমূলক সমালোচনা ও পরামর্শ প্রার্থনা করছি।

তিনি আরো বলেন, জনগনের জন্য প্রশাসন আমি এই প্রতিপাদ্য বিষয়কে লেখার মাধ্যমে নয় কাজের মাধ্যমে বাস্তবায়ন করতে চাই। এই উপজেলার সকল স্তরের সকল শ্রেণিপেশার মানুষের জন্য আমার দপ্তরসহ উপজেলার সকল দপ্তর সব সময় উন্নত সেবা দিতে প্রস্তুত।

যদি কোন সেবা গ্রহীতা উপজেলার কোন দপ্তরের এসে হয়রানী কিংবা উন্নত সেবা থেকে বঞ্চিত হয় তাহলে সেই দপ্তরের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বিরুদ্ধে সরকারের বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। আমি যতদিন সরকারের কর্মচারী হিসেবে নিয়োজিত আছি ততদিন আমি সবার সহযোগিতা নিয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ বির্নিমাণে কাজ করে যাবো।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ