রাবিতে চার কলেজের অধিভুক্তি বিষয়ে সভা অনুষ্ঠিত

আপডেট: এপ্রিল ১৬, ২০২৪, ৯:২৬ অপরাহ্ণ

রাবিতে চার কলেজের অধিভুক্তি বিষয়ে মঙ্গলবার এক সভা অনুষ্ঠিত হয়

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:


রাজশাহী শহরের চারটি সরকারি কলেজের রাজশাহী বিশ^বিদ্যালয়ে (রাবি) অধিভুক্তির বিষয়ে মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল) এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ১১টায় রাবি উপাচার্যের কনফারেন্স কক্ষে অনুষ্ঠিত এই সভায় সভাপতিত্ব করেন উপাচার্য অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তার। সভায় অন্যদের মধ্যে উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক মো. সুলতান-উল-ইসলাম, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক মো. হুমায়ুন কবীর, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. অবায়দুর রহমান প্রামাণিক, ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক মো. তারিকুল হাসান, কলেজ পরিদর্শক অধ্যাপক মো. এ.এম শহীদুল আলম, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক মো. আশরাফুল ইসলাম খান, জনসংযোগ দপ্তরের-প্রশাসক অধ্যাপক প্রদীপ কুমার-পাণ্ডেসহ সংশ্লিষ্ট রাজশাহী কলেজ, রাজশাহী সিটি কলেজ, নিউ গভর্মেন্ট ডিগ্রি কলেজ, রাজশাহী সরকারি মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ ও উপাধ্যাক্ষ, রাবির উপ-রেজিস্ট্রার (একাডেমিক) নিয়ন্ত্রকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অভিপ্রায় অনুযায়ী শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সাম্প্রতিক লক্ষ্য বাস্তবায়নে কীভাবে রাবির সাথে সংশ্লিষ্ট চারটি কলেজ কাজ করতে পারে সে বিষয়ে আগামী ৩০ এপ্রিলের মধ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে একটি প্রতিবেদন প্রদানের বিষয়ে আলোচনা করা হয়।

সভায় কলেজ সমূহের বিদ্যমান অবকাঠামোসমূহ এবং জনবলের বর্তমান ব্যবহার ও কীভাবে তার উন্নয়ন করা যায়, কলেজ-সমূহে শিক্ষা কার্যক্রমে রাবির সম্পৃক্ততা কীভাবে কার্যকর করা যায় ও কলেজসমূহে যেসকল বিষয়ে অতিরিক্ত শিক্ষার্থী ভর্তি হয় সেখানে সামঞ্জস্য আনা সম্পর্কে আলোচনা করা হয়। সেখানে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় মানসম্মত ও গুণগত শিক্ষার বিষয়টিকে এগিয়ে নেওয়া সম্ভব বলে রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ মত জ্ঞাপন করেন।

এতদিন মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ এবং জাতীয় বিশ^বিদ্যালয়ের নিয়মকানুন, বিধি-বিধান দ্বারা কলেজগুলো পরিচালিত হতো। অধিভুক্তি কার্যকর হলে রাবির অধিভুক্তি নীতিমালা দ্বারা কলেসমূহের স্নাতক ও স্নাতকোত্তর শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালিত হবে। কলেজসমূহে শিক্ষক-শিক্ষার্থী অনুপাত এবং আসনসংখ্যার সাথে সামঞ্জস্য রেখে শিক্ষার্থী ভর্তি করা যায় সে বিষয়েও আলোচনা করা হয়। সভায় সর্বসম্মতভাবে সিদ্ধান্ত হয় যে আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে রাবিতে অধিভুক্তি কার্যকর ও সেই শিক্ষাবর্ষ থেকেই স্নাতক, স্নাতক (সম্মান) ও স্নাতকোত্তর শ্রেণিতে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া বাস্তবায়ন, অধিভুক্ত কলেজসমূহের জন্য সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণ, প্রয়োজনীয়সংখ্যক শিক্ষকের পদ সৃষ্টি, পরীক্ষা কমিটিগুলোতে কলেজ শিক্ষকদের অন্তর্ভুক্ত করাসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে আলোচনা করা হয়।

অধিভুক্তি ও সংশ্লিষ্ট বিষয়ে প্রতিবেদন প্রণয়নের জন্য রাবি উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) ও কলেজ পরিদর্শককে যথাক্রমে সভাপতি ও সদস্য-সচিব করে ১০ সদস্যবিশিষ্ট একটি কমিটি গঠনের বিষয়েও সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। এই কমিটি ৩০ এপ্রিলের পূর্বেই প্রতিবেদন প্রদান করবে বলে সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Exit mobile version