রাবিতে মুক্তিযোদ্ধাদের নাতি-নাতনি কোটা সংরক্ষণের দাবি

আপডেট: নভেম্বর ২৮, ২০১৬, ১২:০৬ পূর্বাহ্ণ

রাবি প্রতিবেদক



রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিতে মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিদের কোটা সংরক্ষণ করার দাবি জানিয়েছে মুক্তিযোদ্ধারা। গতকাল রোববার বেলা ১১টায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে আয়োজিত মানববন্ধন নাতি-নাতনিদের ভর্তির কোটা চালুর জন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে দাবি জানান মুক্তিযোদ্ধারা। মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিদের কোটায় ভর্তির সুযোগ না দেওয়ার প্রতিবাদে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ রাজশাহী জেলা ও মহানগর ইউনিট কমান্ড এ কর্মসূচি পালন করে।
মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, সরকারি গেজেটের মাধ্যমে সরকারি বেসরকারি স্বায়ত্বশাসিত, আধা স্বায়ত্বশাসিত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনির ভর্তির সুয়োগ দেওয়ার বিধান রয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে মুক্তিযোদ্ধা কোটায় নাতি-নাতনিদের ভর্তি সুযোগ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ তা মানছে না।
বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদের রাজশাহী মহানগর ইউনিট কমান্ডার মো. আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য দেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের রাজশাহী জেলা কমান্ডার ফরহাদ আলী মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা রবিউল ইসলাম, রুহুল আমিন প্রামাণিক, মহানগরের সহকারী কমান্ডার এন্তাজুল হক, আলী আর্সলান, দুর্গাপুর উপজেলা কমান্ডার আবদুল গনি, মতিহার থানা কমান্ডার আব্দুল হান্নান, মোহনপুর উপজেলা কমান্ডার সিদ্দিকুর রহমান, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের যুগ্মআহ্বায়ক মুস্তারী জাহান প্রমুখ।
এর আগে রাজশাহী জেলা ও মহানগর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের পক্ষ থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে মুক্তিযোদ্ধা কোটায় মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিদের ভর্তির সুযোগ দেওয়া জন্য গত ১৩ অক্টোবর  কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, তারা সরকারের পক্ষ থেকে এ ধরনের কোনো গেজেট পাননি।