রাশি অনুযায়ী রোগ

আপডেট: আগস্ট ২২, ২০১৭, ১:৩১ পূর্বাহ্ণ

ফজলে আজিম


প্রতিটি মানুষের যাপিত জীবন ও শারীরিক গঠন আলাদা। এছাড়া প্রতিটি মানুষের জন্মসময়ও আলাদা। একেক সময় জন্মগ্রহণকারীরা একেক ধরনের শারীরিক সমস্যায় ভুগে থাকেন।
কিছু বিষয়ে সচেতন থাকলে আপনি সহজেই এসব রোগব্যাধি থেকে মুক্ত থাকতে পারেন। এবার চলুন জেনে নেওয়া যাক রাশি অনুযায়ী রোগের ধরন সম্পর্কে।
মেষ রাশি (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল) : আপনাকে শরীর স্বাস্থ্যের ব্যাপারে সচেতন থাকতে হবে। মস্তিষ্কে কোনো ধরনের আঘাত কিংবা স্নায়বিক সমস্যায় ভুগতে পারেন। কারো কারো ক্ষেত্রে উচ্চরক্তচাপ সমস্যা দেখা যেতে পারে। আপনার শরীরের দুর্বল অঙ্গ হচ্ছে মস্তিষ্ক। কারো কারো ক্ষেত্রে চোখের সমস্যা হতে দেখা যায়।
বৃষ রাশি (২১ এপ্রিল-২১ মে) : আপনি কণ্ঠ কিংবা গলা সংক্রান্ত ব্যাধির বিষয়ে সচেতন থাকুন। কারো কারো ক্ষেত্রে দাঁতে সমস্যাও প্রকট আকারে হতে দেখা যায়। থাইরয়েড গ্ল্যান্ড সংক্রান্ত কোনো সমস্যা থাকলে অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।
মিথুন রাশি (২২ মে-২১ জুন) : চঞ্চলতার মাধ্যমে আপনি চারপাশ মুখরিত করে রাখতে পারেন। ঝুঁকি বেশি নেওয়ার কারণে স্নায়বিক সমস্যায় ভুগতে পারেন। আপনার বাহু কিংবা হাতের সমস্যা হতে পারে। কারো কারো ক্ষেত্রে পাকস্থলীর গোলমাল হতে দেখা যায়। স্বাভাবিক খাবার হজমে সমস্যা হয়।
কর্কট রাশি (২২ জুন-২২ জুলাই) : আবহাওয়া পরিবর্তনে ঠান্ডাজাতীয় সমস্যায় কিংবা অ্যাজমা রোগে ভুগতে পারেন। শারীরিক সমস্যার চেয়ে আবেগজনিত কারণে সমস্যায় পড়বেন বেশি। খাদ্যাভাসে অসচেতনতায় পেটের পীড়ায় ভুগতে পারেন। ঠান্ডালেগে বুকে কফ আটকে থাকা কিংবা অ্যাজমা সমস্যা হতে পারে। মহিলাদের স্তন সংক্রান্ত সমস্যা হতে পারে।
সিংহ রাশি (২৩ জুলাই-২৩ আগস্ট) : অতিরিক্ত ঝুঁকি নেওয়া ও কারো কাছ থেকে অতিরিক্ত প্রত্যাশা করা থেকে বিরত থাকুন। জীবনযাপনে শৃঙ্খলার অভাবে কারো কারো ক্ষেত্রে উচ্চ রক্তচাপ কিংবা কার্ডিয়াক সমস্যা হতে পারে। পিঠের ওপরের অংশ, হার্ট ও স্পাইনাল সংক্রান্ত রোগব্যাধির ক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে চলুন।
কন্যা রাশি (২৪ আগস্ট-২৩ সেপ্টেম্বর) : এদের ডাইজেস্টিভ সিস্টেম নিয়ে সাধারণত ভোগান্তিতে পড়তে দেখা যায়। আর তাই খাবার-দাবারের ব্যাপারে সচেতন থাকা উচিত। কারো কারো ক্ষেত্রে বুকে ব্যথা কিংবা স্নায়বিক সমস্যা দেখা যায়। ধূমপান ও মদপানের অভ্যাস যাদের আছে তাদের বিশেষভাবে সচেতন থাকা উচিত।
তুলা রাশি (২৪ সেপ্টেম্বর-২৩ অক্টোবর) : সাধারণত চর্মরোগে এ রাশির লোকদের ভুগতে দেখা যায়। কারো কারো ক্ষেত্রে কিডনিজনিত সমস্যায় ভোগার আশঙ্কা রয়েছে। লাম্বার রিজিওন ও নিতম্বে কোনো ধরনের রোগব্যাধির ক্ষেত্রে অভিজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।
বৃশ্চিক রাশি (২৪ অক্টোবর-২২ নভেম্বর) : নারী ও পুরুষের ক্ষেত্রে ‘রিপ্রোডাক্টিভ সিস্টেম’ সংক্রান্ত সমস্যা হতে দেখা যায়। কারো কারো ক্ষেত্রে শরীরের গোপন অঙ্গের সমস্যা হতে পারে। এমন কোনো কাজ কিংবা অভ্যাস থেকে বিরত থাকার চেষ্টা করুন যা আপনার যৌন স্বাস্থ্যের জন্যে ক্ষতিকর।
ধনু রাশি (২৩ নভেম্বর-২১ ডিসেম্বর) : এ রাশির জাতক/জাতিকাদের মধ্যে কারো কারো লিভার/যকৃত সমস্যা, সায়টিক নার্ভে কোনো ধরনের সমস্যা, কোমর ব্যাথা, পায়ে পানি আসা এ ধরনের রোগব্যাধি হতে দেখা যায়।
মকর রাশি (২২ ডিসেম্বর-২০ জানুয়ারি) : আপনি নিজের ব্যাপারে সচেতন। শরীর স্বাস্থ্যের ব্যাপারে আরেকটু সচেতন হলে ভালো করবেন। আপনার শরীরের হাঁটু কিংবা তার নিচে কোনো ধরনের আঘাত পেতে পারেন। জয়েন্টে কোনো ধরনের সমস্যায় ভুগতে পারেন। সুস্থ থাকার জন্যে নিয়মিত হাঁটার অভ্যাস করুন।
কুম্ভ রাশি (২১ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি) : আপনি সাধারণত স্বতন্ত্র চিন্তা ও কর্মের কারণে একাকীত্বে ভোগেন। বন্ধুবান্ধবের সংখ্যাও কম। এতে করে মানসিক সমস্যায় ভোগার আশংকা রয়েছে। পায়ের গোড়ালিতে কোনো ধরনের আঘাত পেতে পারেন। কারো কারো ক্ষেত্রে বাতজনিত কারণে সমস্যা হতে পারে। কারো কারো ক্ষেত্রে শরীরে রক্তসঞ্চালন সংক্রান্ত দেখা যেতে পারে।
মীন রাশি (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ) : পায়ের গোড়ালি থেকে নিচের অংশ আপনার শরীরের দুর্বলতম অংশ। চলাফেরায় সাবধানতা অবলম্বন করুন। যত বেশি সম্ভব হাঁটুন। যত হাঁটবেন তত সুস্থ থাকবেন। কারো কারো ক্ষেত্রে পায়ের পাতা ও আঙুলের সমস্যা হতে পারে। কোনো দুর্ঘটনায় পায়ে আঘাত পাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। (লেখক : অ্যাস্ট্রোলজার অ্যান্ড সাইকিক কনসালটেন্ট ,রেইকি প্র্যাকটিশনার, সেকেন্ড ডিগ্রি চ্যানেল)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ