রোববার বসছে বাজেট অধিবেশন

আপডেট: জুন ৪, ২০২২, ১০:০১ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


একাদশ জাতীয় সংসদের অষ্টাদশ অধিবেশন বসছে রবিবার (৫ জুন)। আগামী ৯ জুন ২০২২-২৩ অর্থবছরের বাজেট উপস্থাপন করা হবে। রোববার বিকাল পাঁচটায় সংসদে বৈঠক শুরু হবে। এর আগে সংসদের কার্য উপদেষ্টা কমিটির বৈঠকে এ অধিবেশনের মেয়াদকালসহ সার্বিক কার্যসূচি চূড়ান্ত হবে। গত ১৮ মে এই অধিবেশন ডাকেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

মহামারিকালের অন্য অধিবেশনের তুলনায় এবার কিছুটা কম কড়াকড়ি হবে বলে সংসদ সচিবালয় সূত্রে জানা গেছে। করোনাকালের অধিবেশনের মতো এবার সংসদ সদস্যসহ সংশ্লিষ্ট সকলের করোনাভাইরাস নেগেটিভ সনদ থাকার বাধ্যবাধকতা থাকরলেও রোস্টার ভিত্তিতে সংসদ সদস্যদের বৈঠকে অংশগ্রহণের বিষয়টি থাকছে না। নেগেটিভ সনদ থাকলেই প্রতিটি বৈঠকে সব আইনপ্রণেতা অংশ নিতে পারবেন।

এ বিষয়ে সরকারি দলের হুইপ ইকবালুর রহিম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘এবার আমরা মাননীয় সংসদ সদস্যদের জন্য রোস্টার করছি না। করোনাভাইরাস নেগেটিভ সনদ থাকা সবাই সংসদে অংশ নিতে পারবেন।’

জানা গেছে, আগের অধিবেশনগুলোতে প্রতি এক/দুই দিন পরপর করোনা টেস্টের বাধ্যবাধকতা থাকলেও এবার কিছুটা ছাড় দেওয়া হতে পারে। এক্ষেত্রে একবার নমুনা পরীক্ষা করানো হলে চার/পাঁচ কার্যদিবস বৈঠকের অংশগ্রহণের সুযোগ থাকবে।
এবারের অধিবেশনে সংসদের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের এবং গণমাধ্যমকর্মীদের অধিবেশন চলাকালে সংসদে প্রবেশের সুযোগ দেওয়া হবে। তবে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলকসহ অনান্য স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করতে হবে।

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে এর আগের দুই বছরের বাজেট অধিবেশন সংক্ষিপ্ত ছিল। তার তুলনায় এবার কার্যদিবস বেশি হওয়ার আভাস পাওয়া গেছে সংসদ সচিবালয় থেকে। বাজেট উত্থাপনের পর সম্পূরক বাজেট নিয়ে আলোচনা, পাস এবং নতুন অর্থবছরের বাজেট নিয়ে আলোচনা করবেন সংসদ সদস্যরা। পুরো মাসজুড়ে আলোচনা শেষে ৩০ জুনের মধ্যে বাজেট পাস করবে সংসদ। গত ৬ এপ্রিল সপ্তদশ অধিবেশন শেষ হয়।

দুই বছর পর কার্য উপদেষ্টা কমিটি
সংসদের বৈঠক শুরু হওয়ার আগে অধিবেশনের মেয়াদ ও কার্যপরিধি ঠিক করতে বৈঠকে বসবে কার্য উপদেষ্টা কমিটি। এই কমিটির সভাপতি স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই কমিটির সদস্য।

২০২০ সালে মহামারি শুরুর পর আর কার্য উপদেষ্টা কমিটির বৈঠক বসেনি। সংসদ সচিবালয়ের এক কর্মকর্তা জানান, সংসদের বৈঠকের সময়সূচি কমিটিতে সিদ্ধান্ত হবে।

এবারের অধিবেশনে উত্থাপনের জন্য শনিবার পর্যন্ত চারটি বিল সংসদ সচিবালয়ে জমা পড়েছে। এগুলো হলো— বাংলাদেশ গ্যাস, তেল ও খনিজসম্পদ করপোরেশন বিল, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল বিল, বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশন (সংশোধন) বিল এবং বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টে বিচারক (ছুটি, পেনশন, ও বিশেষাধিকার) বিল।

যা থাকবে প্রথম দিনের বৈঠকে
রোববার (৫ জুন) প্রথম দিনের বৈঠকের শুরুতে সভাপতিম-লীর মনোনয়ন দেবেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী। এরপর শোকপ্রস্তাব উত্থাপন করবেন তিনি। প্রথম দিনের বৈঠকে স্বাস্থ্য, নৌ পরিবহন, ধর্ম ও সংস্কৃতিক বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রশ্নোত্তর ও জরুরি জনগুরুত্বসম্পন্ন (৭১ বিধি) বিষয়ে মনোযোগ আকর্ষণ নোটিস নিষ্পত্তির বিষয়টি কার্যসূচিতে রয়েছে।
তবে এ দুটি কার্যক্রমের মধ্যে প্রশ্নোত্তর টেবিলে উত্থাপন ও ৭১ বিধি স্থগিত হতে পারে।

প্রথমদিনের বৈঠকে বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজ ও ডেন্টাল কলেজ বিল-২০২২, বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন (অ্যামেন্ডমেন্ট) বিল ২০২২-এর রিপোর্ট উপস্থাপন করা হবে।

এছাড়া, এদিনে বাংলাদেশ অয়েল, গ্যাস অ্যান্ড মিনারেল করপোরেশন অর্ডিন্যান্স ১৯৮৫ রহিত করে নতুন করে বাংলাদেশ গ্যাস, তেল ও খনিজসম্পদ করপোরেশন বিল ২০২২ উত্থাপন করা হবে। পরে বৈঠকে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল বিল ২০২২ পাস হবে।
তথ্যসূত্র: বাংলাট্রিবিউন