লাফিয়ে বাড়ছে জ্বালানির দাম!গাধায় টানা গাড়িতে অফিস আসার আর্জি পাক যুবকের

আপডেট: জুন ৪, ২০২২, ১০:০১ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির ধাক্কায় বেসামাল পাকিস্তান। লাফিয়ে লাফিয়ে বেড়েই চলেছে ডিজেল-পেট্রলের দাম। এই পরিস্থিতিতে গাড়িতে অফিসে না এসে গাধায় টানা গাড়িতে চেপেই কর্মক্ষেত্রে আসার অনুমতি চাইলেন পাক অসামরিক বিমান সংস্থার এক কর্মী! তাঁর চিঠি পড়ে কর্তৃপক্ষের খোঁচা, প্রচারে আসতেই এমন চিঠি লিখেছেন তিনি।

ওই ব্যক্তির নাম আসিফ ইকবাল। তাঁর চিঠিতে তিনি পরিষ্কার জানিয়েছেন, যেভাবে পেট্রলের দাম বাড়ছে এই পরিস্থিতিতে তাঁর পক্ষে গাড়ি করে অফিসে আসা সম্ভব নয়। তাছাড়া অফিস যে গাড়ি দিত, তাও বন্ধ। এই অবস্থায় তাঁর পক্ষে গাধায় টানা গাড়িতে করেই একমাত্র অফিসে আসা সম্ভব। আসিফের আরজি, তাঁকে ওই গাড়ি বিমানবন্দর চত্বরে পার্ক করার অনুমতি দিতে হবে।

তাঁর এহেন আরজি অবশ্য খারিজ করে দেওয়া হয়েছে। বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ সটান জানিয়েছে, অফিস গাড়ি দেয় না এই দাবি ঠিক নয়। অনেক কর্মীকেই অফিস গাড়ি দিচ্ছে। তাছাড়া বাকিদের জ্বালানির খরচও দেওয়া হয়। ফলে যে অসুবিধার কথা বলছেন আসিফ, তা ভিত্তিহীন। কেবল মাত্র সকলের নজর কাড়তেই ওই পাক যুবক এমন চিঠি লিখেছেন বলেই দাবি কর্তৃপক্ষের।

উল্লেখ্য, পাকিস্তানে লিটারপিছু পেট্রল ও ডিজেলের দাম যথাক্রমে ২০৯.৮৬ টাকা ও ২০৪.১৫ টাকা। সদ্য আসন হারানো ইমরান খান ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন পাক প্রশাসনের বিরুদ্ধে। শাহবাজ শরিফের সরকারকে ‘অসংবেদনশীল সরকার’ বলে তোপ দাগতে দেখা গিয়েছে তাঁকে।

এদিকে দেশের অর্থমন্ত্রী মিফতাহ ইসমাইল সাংবাদিক সম্মেলনে জানিয়েছেন, দাম বাড়ানো ছাড়া কোনও উপায় ছিল না সরকারের পক্ষে। যদিও সেই দাবিকে নস্যাৎ করে দিয়ে ইমরান ভারতের প্রশংসায় পঞ্চমুখ। নয়াদিল্লির উদাহরণ টেনে তিনি জানান, আমেরিকার ‘কৌশলগত মিত্র দেশ’ হলেও ভারত কিন্তু রাশিয়ার থেকে সস্তায় তেল কিনে জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির মোকাবিলা করতে পেরেছে। এমন কোনও পদক্ষেপ পাক সরকার নেয়নি।
তথ্যসূত্র: সংবাদ প্রতিদিন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ