লালপুরে পদ্মা নদীর বালু উত্তোলন চারজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল

আপডেট: জুন ৩, ২০২২, ১০:৩৫ অপরাহ্ণ

নাটোর প্রতিনিধি:


নাটোরের লালপুরে পদ্মা নদী থেকে বালু উত্তোলনের সাথে জড়িত চারজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেছেন নাটোর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

গত বৃহস্পতিবার (০৩ জুন) বিকেলে পিবিআই এর তদন্ত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক নিতাই কুমার সাহা ৬পাতার এই তদন্ত প্রতিবেদন নাটোরের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আবু সাঈদ এর আদালতে জমা দেন।

পদ্মা নদী থেকে বালু উত্তোলনের সাথে জড়িত চারজন অভিযুক্তরা হলেন, লালপুর উপজেলার বালিতিতা এলাকার স্থানীয় ঠিকাদার শরীফুল ইসলাম, দক্ষিণ লালপুর এলাকার এবং নাটোর জেলা পরিষদের সাবেক সদস্য মতিউর রহমান ওরফে বাঙ্গাল, বনপাড়ার মেসার্স আরাফাত ট্রেডার্সের মালিক ঠিকাদার আব্দুল্লাহ আল মামুন এবং বড়াইগ্রাম উপজেলার কালিকাপুর এলাকার মোস্তফা বেপারী।

এছাড়া সরকারি রাস্তা কেটে বালু পরিবহন করায় অন্তত লক্ষাধিক টাকা ক্ষতি হয়েছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। আগামী ৫জুন এই মামলার শুনানী অনুষ্ঠিত হবে। গত ১২এপ্রিল ‘অনুমতি ছারা পানির্শন্য পদ্মা নদীর তলদেশ থেকে বালু উত্তলনের অভিযোগ’ শিরোনামে দৈনিক সোনার দেশ পত্রিকা বিভিন্ন মিডিয়ায় সংবাদ প্রকাশ এবং প্রচারিত হয়। সংবাদটি আদালতের নজরে আসলে নাটোরের সিনিয়র জুড়িশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আবু সাঈদ স্বপ্রনোদিত হয়ে মামলা গ্রহন করে নাটোর পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দেন।