শিবগঞ্জের তর্ত্তিপুরে সনাতন ধর্মালম্বীদের গঙ্গাস্নান

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২, ২০২০, ১২:৩৬ পূর্বাহ্ণ

শিবগঞ্জ প্রতিনিধি


শিবগঞ্জের তর্ত্তিপুরে সনাতন ধর্মালম্বীদের গঙ্গাস্নান করতে আসা পূর্ণ্যাথীরা-সোনার দেশ

প্রতিবছরের মতো এবারো চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার তর্ত্তিপুরে গঙ্গাশ্রম ঘাটে গতকাল শনিবার হিন্দু সম্প্রদায়ের গঙ্গাস্নান উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে। এই উৎসবে চাঁপাইনবাবগঞ্জসহ আশপাশের জেলা এলাকা থেকে হিন্দু সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন। বিভিন্ন আচার পালনের পর অনুষ্ঠিত হয় এই পূণ্যস্নানানুষ্ঠান।
এখানে হিন্দু ধর্মালম্বীরা পাপমোচন ও পূর্ণ লাভের আশায় মাকরী সপ্তমী তিথিতে গঙ্গাস্নানে আসেন। ধর্মসাধক জাহ্নুমণি এই গঙ্গা নদীতে আত্মবলীদান দিয়েছিলেন। আর সেই থেকে এখানে প্রতিবছর এই দিনে পূণ্যগঙ্গাস্নান হয়ে আসছে। দেশের বিভিন্ন এলাকার হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ হিন্দু সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষরা প্রতি বছর এখানে এসে স্নান করে পূণ্যার্জন করে থাকেন। এটি উত্তরবঙ্গের অন্যতম র্তীর্থস্থান হওয়ায় রাজশাহী, নাটোর, নওগাঁ, বগুড়াসহ অন্যান্য জেলা থেকে এখানে পূণ্যার্থীদের সমাগম ঘটে। এবছরও এর ব্যতিক্রম ঘটেনি। পৌরাণিক যুগ থেকে এখানে এই উৎসব চলে আসছে বলে তারা জানান।
তর্ত্তিপুর মহাশ্মশান ও গঙ্গাস্নান কমিটির সাধারণ সম্পাদক কমল ত্রিবেদী জানান, পৌরাণিক যুগ থেকে উত্তরবঙ্গের অন্যতম র্তীর্থস্থান তর্ত্তিপুর গঙ্গাস্নানে বিভিন্ন এলাকার সনাতন ধর্মালম্বীরা সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত স্নানকার্য সম্পন্ন করেন। এ স্নান করলে মানব জীবনের পাপমোচন ও অকল্যাণ দূর হয়। তিনি আরো বলেন, এ বছর প্রায় লক্ষাধিক ভক্তের সমাগম ঘটেছে।
এদিকে, এ উপলক্ষে দিনব্যাপী মেলায় প্রসাধনী, কাঠের আসবাবপত্র, হিন্দু ধর্মের বিভিন্ন উপকরণ, মিষ্টি ও খাবার দোকান, পূজা এবং পালাক্রমে কীর্ত্তনের আয়োজন করা হয়। গঙ্গাস্নানকে ঘিরে গোটা তর্ত্তিপুর এলাকা হিন্দু সম্প্রদায়ের মিলনমেলায় পরিণত হয়েছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ