নওগাঁয় স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে গণমাধ্যমের ভূমিকা শীর্ষক মতবিনিময় সভা

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২০, ২০২৪, ৯:০৩ অপরাহ্ণ


তথ্যবিবরণী:নওগাঁয় স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে গণমাধ্যমের ভূমিকা শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। জেলা প্রশাসক মো. গোলাম মওলা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে রাজশাহী আঞ্চলিক তথ্য অফিসের উপপ্রধান তথ্য অফিসার মো. তৌহিদুজ্জামান সভাপতিত্ব করেন ।

তথ্য আগামী দিনে শক্তিশালী কারেন্সি উল্লেখ করে সভায় জেলা প্রশাসক বলেন, ২০৪১ সালের মধ্যে সরকারের স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণের যে লক্ষ্য তা গণমাধ্যমের মাধ্যমে জনগণের কাছে তুলে ধরতে হবে। শুধু সাক্ষরতা বাড়ালেই হবে না ডিজিটাল সাক্ষরতা বাড়াতে হবে। শুধু স্মার্টফোন বা ল্যাপটপ চালাতে জানলেই হবে না, এগুলো ব্যবহারে আরও স্মার্ট হতে হবে।

তিনি বলেন, বর্তমানে অনেক নাগরিক সেবা অনলাইনে পাওয়া যায়। সেইসব সেবা পেতে হলে স্মার্ট হতে হবে। জনগণ যদি স্মার্ট হয় তা হলে কোনো দুর্নীতির অভিযোগ আসবে না। ফলে ঘুষ-দুর্নীতি কমে যাবে। সেবাপ্রত্যাশীরা স্মার্ট হলে দ্রুত দেশ এগিয়ে যাবে।

সরকার ২০৩০ সালের মধ্যে পুরো টেকনোলজি নির্ভর হবে সেই লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে জানিয়ে জেলা প্রশাসক বলেন, ঘুষ-দুর্নীতি কমিয়ে আনাই সরকারের চ্যালেঞ্জ। বর্তমানে সরকারের যুগোপযোগী কর্মপরিকল্পনার ফলে অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করা যায়, এতে করে অনেক অভিযোগ, হয়রানি কমে গেছে। তিনি স্মার্ট ইকোনমি, স্মার্ট নাগরিক, স্মার্ট সোসাইটি ও স্মার্ট সরকার গঠনের নানামুখী পদক্ষেপের ওপর জোর দেন।
সভার শুরুতে উপপ্রধান তথ্য অফিসার পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপনার মাধ্যমে ২০৪১ সালের মধ্যে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে করণীয় বিষয়ে বছরভিত্তিক লক্ষ্যমাত্রা তুলে ধরেন।

আঞ্চলিক তথ্য অফিসের সিনিয়র তথ্য অফিসার তাজকিয়া আকবারীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে নওগাঁ জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি কায়েস উদ্দিন এবং জেলা তথ্য অফিসের তথ্য অফিসার রূপ কুমার বর্মন বক্তৃতা করেন। মতবিনিময় সভায় বিভিন্ন প্রিন্ট এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ায় কর্মরত জেলার ৪০ জন সাংবাদিক অংশগ্রহণ করেন।

Exit mobile version