সন্তানকে কারামুক্ত করতে ৩৫ ফুট টানেল খুঁড়লেন মা

আপডেট: August 4, 2020, 11:46 pm

সোনার দেশ ডেস্ক


টেলিভিশনের পর্দায় কারাগারে দাঙ্গা অথবা জেলভেঙে পালানোর অনেক ছবি দেখে থাকলেও, সাজাপ্রাপ্ত সন্তানকে কারামুক্ত করতে এক মা যে ‘কাণ্ড’ ঘটিয়েছেন তা হয়তো এর আগে ঘটেনি। শুধু তাই নয়, সন্তানকে কারামুক্ত করতে মা যে পদ্ধতি অবলম্বন করেছেন, তা নিঃসন্দেহে সাহসিকতার পরিচয় রাখে। একইসঙ্গে মারাত্মকও।
খুনের দায়ে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত সন্তানকে মুক্ত করতে এক হাতে ৩৫ ফুট দীর্ঘ টানেল (সুড়ঙ্গ) খনন করেন ইউক্রেনের এক মা। যদিও শেষ রক্ষা হয়নি কারোরই। পুলিশের হাতে ধরা পড়ার পর তিনিও এখন কারাগারে বন্দি।
ছেলেকে মুক্ত করতে পরিকল্পনার অংশ হিসাবে ৫১ বছর বয়সী ওই মা প্রথমে কারাগারের কাছে জাপোরিজিয়া অঞ্চলে একটি বাড়ি ভাড়া নেন। এরপর তিনি টানেল খনন করতে প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম সংগ্রহ করেন।
মানুষের মনোযোগ এড়াতে তিনি রাতের আঁধারে খনন কাজ করতেন। অল্প সময়ে কঠোর পরিশ্রমের কল্যাণে তিনি ১০ ফুট টানেল খনন করতে সক্ষম হন। যার মাধ্যমে তিনি ছেলের কারাগারে প্রবেশের পথ সূচণা করেন। পরবর্তীতে তিনি কারাগারের দেয়ালের নিচ দিয়ে ৩৫ ফুট দীর্ঘ টানেল তৈরি করেন।
কেউ যেন তাকে চিনতে না পারে বা সবার থেকে নিজেকে সরিয়ে রাখতে দিনের বেলা তিনি ঘরেই থাকতেন। মূলত সূর্যাস্তের পর তিনি ঘর থেকে বের হতেন। নিজের স্কুটারে চেপে তিনি ঘটনাস্থলে পৌঁছাতেন এবং মাটি সরিয়ে নিতে একটি ছোট আকারের ট্রলি ব্যবহার করতেন। ধরা পড়ার আগে মাত্র তিন সপ্তাহে তিনি ৩ টন মাটি খনন করতে সক্ষম হন বলে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে।
এদিকে বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়রা মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখালেও অনেকে সন্তানের প্রতি তার ত্যাগ ও কঠোর পরিশ্রমের প্রংশসা করেছেন।
তথ্যসূত্র: রাইজিংবিডি

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ