সবুজ তানোর গড়তে তালগাছ রোপণে বিপ্লব

আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৭, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ণ

ইমরান হোসাইন, তানোর


জলবায়ু পরিবর্তন ও নির্বিচারে বৃক্ষনিধনের ক্ষতিকর প্রভাব সম্পর্কে গণসচেতনতা সৃষ্টি করতে বরেন্দ্র অঞ্চল হিসেবে পরিচিত রাজশাহীর তানোর উপজেলায় চার লাখ তালগাছের বীজ রোপণ করা হয়েছে। এরসঙ্গে বিভিন্ন ওষুধি ও ফলজ গাছের চারা রোপণ করা হয়।
‘বৃক্ষ রোপণ করি, দুর্যোগমুক্ত বরেন্দ্র অঞ্চল গড়ি’ স্লোগানকে সামনে রেখে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা এবং মানুষকে আর্থিকভাবে লাভবান করতেই এই বৃক্ষরোপণ শুরু হয়েছে। গত শনিবার থেকে বৃহম্পতিবার পর্যন্ত উপজেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সড়কে সপ্তাজুরে এ চারাগুলো রোপণ করে স্কুল, কলেজের শিক্ষক শিক্ষার্থী ও বিভিন্ন সেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠান। এই কর্মসূচির আয়োজক উপজেলা প্রশাসন।
গত ১৬ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ৯টায় উপজেলার পরিষদ প্রাঙ্গণে তাল গাছের চারা রোপণ করে এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ও কর্মসূচির পৃষ্ঠপোষক মুহা. শওকাত আলী। এসময় জাতীয় ও বঙ্গবন্ধু পদকপ্রাপ্ত কৃষক নূর মোহাম্মদ, উপজেলা কৃষি অফিসার শফিকুল ইসলাম, তানোর বিএমডিএর সহকারী প্রকৌশলী ও এলজিইডি প্রকৌশলী মামুনুর রশিদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
উদ্বোধন শেষে ইউএনও শওকাত আলী বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন ও নির্বিচারে বৃক্ষনিধনের ক্ষতিকর প্রভাব সম্পর্কে গণসচেতনতা বাড়াতে স্থানীয় সাংসদের পরামর্শে এ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হয়েছে। গাছ লাগানো মহৎ কাজ। এই মহৎ কাজে অংশ নিয়ে সপ্তার ব্যবধানে তানোরজুরে প্রায় চার লক্ষাধিক গাছের চারা রোপণ করে তানোরবাসী রেকর্ড সৃষ্টি করেছে।
ইউএনও আরো বলেন, তানোর উপজেলাসহ পুরো বরেন্দ্র অঞ্চল বজ্রপাত প্রবণ এলাকা। এ অবস্থা থেকে পরিত্রাণ পেতে হলে তাল গাছের পাশাপাশি অধিক বৃক্ষরোপণ জরুরি। আজকের এই বৃক্ষরোপণের সুফল আগামী দিনগুলোতে পাবে মানুষ। নতুন কর্মসূচির মাধ্যমে রোপিত চারাগুলোর পরিচর্যা করা হবে বলে জানান তিনি।
জানা গেছে, এ বৃক্ষরোপণ অভিযানে তানোর পৌরসভা উচ্চবিদ্যালয় ও চাপড়া উচ্চবিদ্যালয়সহ শতাধিক স্কুল কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী অংশ নেয়। এছাড়া কৃষি বিভাগ, বনবিভাগ, স্বাস্থ্য বিভাগসহ বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনও অংশ নেয়।
কৃষিতে বঙ্গবন্ধু পদকপ্রাপ্ত কৃষক নূর মোহাম্মদ জানান, ইউএনওর নির্দেশে তার নিজস্ব উদ্যোগে সপ্তা ধরে তিনি উপজেলার প্রায় ১০ কিলোমিটার রাস্তার দুই ধারে অর্ধলক্ষাধিক তালবীজ রোপণ করেছেন। এরআগে তানোর বিএমডি এর উদ্যোগে তালগাছ রোপণ কর্মসূচি বাস্তবায়নে অংশ নিয়ে পাঁচ হাজার গাছের চারা রোপণ করেন। বর্তমানে এসব গাছ ফল দিতে শুরু করেছে।
আশ্বিনের তীব্র রোদ ও বৃষ্টি উপেক্ষা করে তানোর পৌরসভা উচ্চবিদ্যালয়ের দুই শতাধিক শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা তানোর সদর হতে কাশিম বাজার প্রায় ১০ কিলোমিটার রাস্তার দুই ধারে তাল গাছের চারা ছাড়াও বিভিন্ন গাছের চারা রোপণ করেছেন। দশম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী বলেন, এ ধরনের কর্মসূচিতে অংশ নিতে পেরে ভালো লাগছে তাদের।
বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক রবিউল ইসলাম জানান, তার বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকের নিয়ে সপ্তা ধরে গাছের চারা রোপণের কর্মসূচি বাস্তবায়ন করেছেন। এ পর্যন্ত প্রায় ১০ হাজার চারা বিভিন্ন রাস্তার পাশে রোপণ করা হয়েছে। তিনি আশা করছেন, তার শিক্ষর্থীরা বাড়িতে গিয়ে বিভিন্ন রাস্তার পাশে গাছ লাগানোর উদ্যোগ নেবেন।
এ বিষয়ে তানোর পৌরসভার মেয়র মিজানুর রহমান মিজান বলেন, তার পৌর এলাকায় প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, রাজনৈতিক, সামাজিক ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের লোকজন এ কর্মসূচিতে অংশ নিয়েছে। তার উদ্যোগে এবারে ১০ হাজার তালগাছ ও বিভিন্ন ফলজ গাছের চারা রোপণ করা হয়েছে বলে জানান মেয়র।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ