সম্পূর্ণ আইপিএল করার চেষ্টা হচ্ছে আমিরশাহিতেই

আপডেট: July 22, 2020, 2:50 pm

সোনার দেশ ডেস্ক :


সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতেই যে এ বারের আট দলের টি-টোয়েন্টি মহাযজ্ঞ হওয়ার সম্ভাবনা বেশি, তা জানিয়ে দিলেন আইপিএল চেয়ারম্যান ব্রিজেশ পটেল। কয়েক দিনের মধ্যেই আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠকও ডাকা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। ‘‘গভর্নিং কাউন্সিল সাত থেকে দশ দিনের মধ্যে বৈঠক করবে। সেখানেই সব সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এখনও পর্যন্ত যা পরিকল্পনা, সম্পূর্ণ আইপিএল করার কথাই ভাবা হচ্ছে,’’ বলেছেন ব্রিজেশ। যোগ করছেন, ‘‘সম্ভবত সংযুক্ত আরব আমিশাহিতেই হবে আইপিএল।’’
ভারতীয় টি-টোয়েন্টি মহাযজ্ঞ আয়োজনের ব্যাপারে আমিরশাহি যে এগিয়ে এবং বোর্ড পুরোদমে প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছে, সেই খবর মঙ্গলবারের আনন্দবাজারেই প্রকাশিত হয়েছে। আটটি দলও তৈরি হতে শুরু করে দিয়েছে। সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহে শুরু হবে আইপিএল। নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে শেষ করা হবে। সম্পূর্ণ আইপিএল করার জন্য একই দিনে দু’টো করে ম্যাচের সংখ্যা বাড়ানো হচ্ছে। পুরো আইপিএল হলে সব মিলিয়ে ৬০টি ম্যাচ হবে।
সংবাদসংস্থা পিটিআই-কে ব্রিজেশ বলেছেন, ‘‘প্রক্রিয়াগত দিকটা নিশ্চিত করাই সব চেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হতে যাচ্ছে।’’ তিনিও ধরে নিচ্ছেন, দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে আইপিএল হবে। তবে আমিরশাহি কর্তারা জানিয়েছেন, কুড়ি শতাংশ দর্শক রেখে ম্যাচ করার চেষ্টা করবেন যদি করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে এবং তাদের সরকার অনুমতি দেয়।
লকডাউনে বেশির ভাগ ক্রিকেটারই বাড়িতে বন্দি। দীর্ঘ দিন ক্রিকেটের সঙ্গে যোগাযোগ নেই। তাই কমপক্ষে তিন থেকে চার সপ্তাহের শিবির দরকার পড়বে সকলের। সেই কারণে আটটি দলই এক মাস আগে চলে যেতে পারে দুবাই। সেখানেই শিবির হবে। ধরে নেওয়া হচ্ছে, অগস্টের শেষ দিকে দুবাই রওনা হতে পারে দলগুলি। সেক্ষেত্রে অগস্টের মাঝামাঝি ভারতে জড়ো হতে হবে ক্রিকেটারদের। তার পর এখানে ১৪ দিনের নিভৃতবাস পর্ব সেরে যেতে হবে বিদেশে। তবে বিদেশি ক্রিকেটারদের ক্ষেত্রে সরাসরি তাঁদের দুবাই নিয়ে যাওয়ার পক্ষেই ভোট বেশি।
তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা