সিঙ্গাপুরে কৃষ্ণাদের লক্ষ্য অভিজ্ঞতা অর্জন

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০১৭, ১২:২১ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



র‌্যাঙ্কিংয়ে এগিয়ে থাকা সিঙ্গাপুর ও মালয়েশিয়ার বিপক্ষে অভিজ্ঞতা নেওয়াই মূল লক্ষ্য বাংলাদেশের মেয়েদের। কোচ গোলাম রব্বানী ছোটনও জানিয়েছেন, সিঙ্গাপুরের অভিজ্ঞতা থাইল্যান্ডের প্রতিযোগিতায় কাজে লাগবে।
ওমেন্স ডেভেলপমেন্ট টুর্নামেন্টে খেলতে বুধবার সিঙ্গাপুর যাচ্ছে বাংলাদেশ। বৃহস্পতিবার স্বাগতিক সিঙ্গাপুরের সঙ্গে খেলার পরের দিন মালয়েশিয়ার সঙ্গে খেলবে কৃষ্ণারা। ফিফার মেয়েদের র‌্যাঙ্কিংয়ে সিঙ্গাপুর (৯৮তম) ও মালয়েশিয়ার (৮২তম) চেয়ে পিছিয়ে বাংলাদেশ (১১৪তম)।
আগামী সেপ্টেম্বরে থাইল্যান্ডে শুরু হতে যাওয়া এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপ সামনে রেখে কদিন আগে জাপানে একটি ফুটবল ফেস্টিভ্যালে খেলে এসেছে বাংলাদেশ। দলের কোচ ছোটন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে ফোনে জানান, সিঙ্গাপুরেও অভিজ্ঞতা নেওয়া মূল লক্ষ্য তাদের।
“সিঙ্গাপুর ও মালয়েশিয়া দুটিই জাতীয় দল। আমাদের চেয়ে র‌্যাঙ্কিংয়ে এগিয়ে। তো তাদের সঙ্গে আমরা প্রথম খেলতে যাচ্ছি। জাপানে যেমন অভিজ্ঞতা অর্জন করতে গিয়েছিলাম, এখানেও আমাদের লক্ষ্যটা একই রকম।”
“এই মেয়েরা সাফে খেলেছে; অভিজ্ঞতা অর্জন করেছে। জাপানে গিয়েও অভিজ্ঞতা নিয়েছে। আমি মনে করি, এই দুইটা দলের সঙ্গে খেললে তাদের আরও অভিজ্ঞতা হবে; যেটা এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপে কাজে লাগবে।”
কিরণকে বয়কট গণমাধ্যমের : কৃষ্ণাদের সিঙ্গাপুর যাওয়া উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার সংবাদ সম্মেলন হওয়ার কথা থাকলেও তা হয় নি বাফুফের মহিলা উইংয়ের চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণের সাম্প্রতিক সময়ের কিছু আচরণের কারণে তাকে গণমাধ্যম বয়কট করায়।
কদিন আগে কৃষ্ণাদের অফিসিয়াল স্পন্সর ঘোষণার অনুষ্ঠানে গণমাধ্যমের ভূমিকার ঢালাওভাবে সমালোচনা করেন কিরণ। গণমাধ্যমের প্রতিবেদনের কারণে ‘স্পন্সর আসে না’, ‘প্রোপাগান্ডা নিয়ে গণমাধ্যম কাজ করে’-এমন সব অভিযোগ করেন তিনি।
বাফুফের টেকনিক্যাল ও স্ট্র্যাটেজিক ডিরেক্টর পল স্মলির আচরণে হতাশ হয়ে কোচ ছোটনের ক্যাম্প ছেড়ে চলে যাওয়া নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়ার পর গণমাধ্যমের খবরকে ‘মিথ্যা’ বলে উড়িয়ে দেন কিরণ। অথচ পরে বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিনের হস্তক্ষেপে ক্যাম্পে ফেরেন ছোটন। এর আগে কিরণের সিদ্ধান্তে একটি জাতীয় দৈনিকের ফটোগ্রাফারকে ভবনে ঢুকতে না দেওয়ার মতো অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনাও ঘটে। এসব ঘটনায় কিরণকে বয়কটের সিদ্ধান্ত নেয় গণমাধ্যম। তবে সাংবাদিকরা বাফুফে ভবনে ছিলেন কোচ ও অধিনায়কের সঙ্গে কথা বলার জন্য। কিন্তু কিরণের উপস্থিতি ছাড়া সংবাদ সম্মেলন হবে না বলে জানান বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ।-বিডিনিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ