হঠাৎ কেন তীব্র আলোর ঝলক বৃহস্পতিতে?

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১, ৮:১৩ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


হাজার টাকার ঝাড় বাতিটা যেন রাতকে দিন করেছে! কে ছড়িয়ে দিল তীব্র আলোর দ্যুতি বৃহস্পতি গ্রহে?

রাতের আকাশে বৃহস্পতির উপর ‘জলসাঘর’-এর লক্ষ লক্ষ আলোকবাতির ঝলক! হঠাৎই ধরা পড়ল পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্তে বসানো টেলিস্কোপে।

ব্রাজিল থেকে শুরু করে ফ্রান্স, ইটালি, জার্মানিতেও। চার দিক থেকে খবর আসতে শুরু করে চোখ ঝলসে দেওয়ার মতো আলোর ঝলক দেখা গিয়েছে সৌরম-লের বৃহত্তম গ্রহ বৃহস্পতিতে।

কে জ্বালাল সেই সুতীব্র আলো বৃহস্পতিতে?
কিন্তু কেন? কীসের জন্য সেই আলোর ঝলক? এমন ঘটনা তো পৃথিবীর কোনও একটি জায়গায় বসানো টেলিস্কোপে ধরা পড়েনি, ধরা পড়েছে বহু দেশের বহু জায়গায়। তাই শোরগোল পড়ে যায় বিজ্ঞানীমহলে।

বিজ্ঞানীদের বদ্ধমূল ধারণা, বিশাল কোনও একটি মহাজাগতিক বস্তু এসে আছড়ে পড়েছে বৃহস্পতির উপর। তার ফলে বৃহস্পতিতে হয়েছে ভয়ঙ্কর বিস্ফোরণ। তা কোনও বিশাল গ্রহাণু হতে পারে। হতে পারে কোনও বিশাল ধূমকেতু। এমনকি তা হতে পারে অন্য কোনও অচেনা, অজানা মহাজাগতিক বস্তু।

কখন দেখা গিয়েছে সেই আলোর ঝলক?
উপগ্রহ ‘আইও’ প্রদক্ষিণের পথে বৃহস্পতির সামনে দিয়ে গেলে কী ভাবে কতটা ছায়া পড়ে তার গ্রহের উপর, তা পর্যবেক্ষণ করছিলেন জার্মানির জ্যোতির্বিজ্ঞানী হ্যারল্ড পালেস্কে। গত ১৪ সেপ্টেম্বর ভারতীয় সময় ভোর ৪টা ৯ মিনিটে। তখনই তাঁর টেলিস্কোপে ধরা পড়ে বৃহস্পতির উপর তীব্র আলোর ঝলক। সেই মুহূর্তে ব্রাজিলেও এক জ্যোতির্বিজ্ঞানীর টেলিস্কোপে দেখা যায় সেই ঝলক। তার কিছু ক্ষণ পর থেকে বৃহস্পতিতে ওই আলোর ঝলক দেখার খবর আসতে শুরু করে ইটালি ও ফ্রান্স থেকেও।

বৃহস্পতি সৌরম-লের বৃহত্তম গ্রহ আর তার অভিকর্ষ বল খুব জোরালো বলে জন্মের পর থেকেই মহাজাগতিক বস্তুর হামলা, ঝড়-ঝাপ্টা সামলে আসছে। বৃহস্পতি না থাকলে পৃথিবীতে প্রাণকে বেশি দিন টিকিয়ে রাখা যেত না।
আধুনিক জ্যোতির্বিজ্ঞানের ইতিহাসে বৃহস্পতির উপর কোনও বিশাল মহাজাগতিক বস্তুর হামলার ঘটনা টেলিস্কোপে প্রথম ধরা পড়ে ১৯৯৪ সালে। সে বছর বৃহস্পতির উপর আছড়ে পড়েছিল শুমেখার-লেভি ধূমকেতু। তাতে ভয়ঙ্কর বিস্ফোরণ হয়েছিল আর সুবিশাল ফাটলও ধরেছিল বৃহস্পতির পিঠে। বিজ্ঞানীদের ধারণা, পৃথিবীতে ডাইনোসররাও নিশ্চিহ্ন হয়ে গিয়েছিল এমনই কোনও বিশাল গ্রহাণু বা উল্কাপি- আছড়ে পড়ায়।

কেন সেই আলো? এখনও ধোঁয়াশায় বিজ্ঞানীরা
আধুনিক জ্যোতির্বিজ্ঞানের রেকর্ড জানাচ্ছে, শুমেখার-লেভি ধূমকেতুর হামলার পর বৃহস্পতিতে কোনও মহাজাগতিক বস্তু আছড়ে পড়ার ঘটনা আর তার ফলে সৃষ্ট আলোর ঝলক এই নিয়ে পৃথিবী থেকে দেখা গেল অষ্টম বার।
যদিও এখনও বিজ্ঞানীরা নিশ্চিত নন, গত ১৪ সেপ্টেম্বর ঠিক কী কারণে অত তীব্র আলোর দ্যুতি দেখা গিয়েছে বৃহস্পতিতে।
তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ