হাজার কোটি ডলার ভারতীয় বিনিয়োগের প্রতিশ্রুতি

আপডেট: এপ্রিল ১১, ২০১৭, ১২:১৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


বিদ্যুৎ ও জ্বালানিসহ বিভিন্ন খাতে প্রায় একহাজার কোটি ডলার বিনিয়োগের জন্য বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের সঙ্গে চুক্তি ও সমঝোতা স্মারকে সই করেছেন ভারতীয় ব্যবসায়ীরা।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার চার দিনের সফরের শেষ দিনে সোমবার তার উপস্থিতিতে এসব চুক্তি বিনিময় হয় বলে ভারতীয় হাই কমিশনের এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।
জ্বালানি-বিদ্যুৎ ছাড়াও সরঞ্জাম, শিক্ষা ও চিকৎসা খাতে বিনিয়োগের চুক্তিও রয়েছে।
এগুলোর মধ্যে রামপাল তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্র ও নেপাল থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহসহ পাঁচটি বিদ্যুৎ খাতের প্রকল্প রয়েছে। চারটি বিনিয়োগ প্রকল্প তেল, গ্যাস ও পেট্রোলিয়াম খাতে সহযোগিতার চুক্তি।
এর আগে সফরের দ্বিতীয় দিন শনিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে শেখ হাসিনার বৈঠক শেষে এক যৌথ বিবৃতিতে ভারতের ব্যবসায়ীরা বাংলাদেশে ৯০০ কোটি ডলার বিনিয়োগে চুক্তি করেছে বলে জানানো হয়।
চারদিনের সরকারি সফরে সাড়ে তিনশ সঙ্গী নিয়ে শুক্রবার ভারত যান প্রধানমন্ত্রী। তার সফরসঙ্গীদের মধ্যে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি আব্দুল মাতলুব আহমেদের নেতৃত্বে একটি আড়াইশ জনের এক ব্যবসায়ী প্রতিনিধি দল ছিল।
সোমবার নয়া দিল্লিতে ভারতীয় ১৫০ ব্যবসায়ীর এক প্রতিনিধি দলের সঙ্গে অনুষ্ঠানে ওইসব চুক্তি বিনিময় হয়। অনুষ্ঠানে গত কয়েক বছরে আর্থ-সামাজিক খাতে বাংলাদেশের অর্জনের কথা তুলে ধরেন শেখ হাসিনা।
বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি, বিপুল সংখ্যক কর্মক্ষম জনগোষ্ঠীর সুবিধা, ব্যবসায় স্বল্প ব্যয় ও ব্যাপক ভোক্তা ভিত্তির ‘পূর্ণ সুবিধা’ নিয়ে ভারতীয় ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগের আহ্বান জানান।
শুধুমাত্র ভারতীয় বিনিয়োগকারীদের জন্য মংলা, ভেড়ামারা ও মিরসরাইয়ে স্থাপিত বিশেষ অর্থনৈতিক এলাকায় ভারতীয় কোম্পানিগুলোকে বিনিয়োগের আহ্বান জানান তিনি।
ভারতের পেট্রোলিয়াম ও প্রাকৃতিক গ্যাস বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।
বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বাড়তে থাকা সম্পর্কের কথা তুলে ধরেন। সেসঙ্গে ভারতের পূর্বাঞ্চল ও উত্তর-পূর্বাঞ্চলসহ উপ-আঞ্চলিক ও বাংলাদেশের অর্থনৈতিক সম্ভাবনার কথাও তুলে ধরেন।
প্রধানমন্ত্রীর এই সফরে সামরিক খাতে ক্রয়সহ বিভিন্ন প্রকল্পে ৫০০ কোটি ডলারের ভারতীয় ঋণ সহায়তার চুক্তি হয়েছে।- বিডিনিউজ