হোটেল কর্মচারী হত্যার ঘটনায় গ্রেফতার দুই তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর

আপডেট: মার্চ ২০, ২০১৭, ১২:২৬ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক



নগরীর আবাসিক হোটেলের কর্মচারী সিরাজুল ইসলাম হত্যার ঘটনায় হোটেলের ম্যানেজার ও অপর এক কর্মচারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল রোববার তাদের সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন সহকারে আদালতে প্রেরণ করা হলে আদালত তাদের তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন বলে জানিয়েছেন সিরাজুল ইসলাম হত্যা মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সেলিম বাদশা।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, হোটেল ম্যানেজার রিপন চৌধুরী ও কর্মচারী সাজু। এর আগে গত শনিবার বিকেলে নিহতের স্ত্রী জেসমিন আক্তার লাকী বাদি হয়ে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। নিহত হোটেল কর্মচারী সিরাজুল ইসলামের বাড়ি রাজশাহীর তানোর উপজেলার চান্দুড়িয়া এলাকায়। তার শ্বশুড় বাড়ি নগরীর আমবাগান এলাকায়। তবে পরিবারের সদস্যরা সবাই গ্রামে থাকতেন। গত ১৭ বছর ধরে তিনি এই হোটেলে কর্মরত ছিলেন।
নগরীর সাহেববাজার এলাকায় অবস্থিত ‘আল হাসিব’ এর ৪০৩ নম্বর কক্ষ থেকে গত শনিবার পুলিশ ওই হোটেল কর্মচারী সিরাজুল ইসলামের লাশ উদ্ধার করে। শুক্রবার দিবাগত রাতের কোনো এক সময়ে তাকে শ্বাসরোধ ও ঘাড়ে আঘাত করে হত্যা করা হয়েছে বলে পুলিশের ধারণা। ওই কক্ষে একজন বোর্ডার ছিলেন। নিহত হওয়ার পর ওই বোর্ডারকে কক্ষে পাওয়া যায়নি। এমনকি রেজিস্ট্রার খাতা থেকে পাতা ছিঁড়ে নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছিল হোটেল ম্যানেজার।
তদন্তকারী কর্মকর্তা সেলিম বাদশা জানান, এ ঘটনায় শনিবার রাতেই হোটেলের ম্যানেজার রিপন চৌধুরী ও কর্মচারী সাজুকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। পরে তাদের এই হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। রোববার তাদের সাত দিনের রিমান্ডের আবেদনসহ রাজশাহী মহানগর হাকিম আদালত-৫ এ সোপর্দ করা হয়। শুনানি শেষে আদালতের বিচারক কুদরত-ই-খুদা তাদের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।
তদন্তের বিষয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে সেলিম বাদশা বলেন, তদন্ত চলছে। আশা করছি তদন্তে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য বের করা সম্ভব হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ