১১ দফা বিধিনিষেধ কার্যকর হচ্ছে আজ সকলকে বিধিনিষেধ মানতে হবে

আপডেট: জানুয়ারি ১৩, ২০২২, ১২:১২ পূর্বাহ্ণ

আজ (১৩ জানুয়ারি) থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত ১১ দফা বিধিনিষেধ কার্যকর হচ্ছে। এই বিধিনিষেধ দেশের মানুষকে মেনে চলার জন্য বলা হয়েছে। আজ থেকেই বাধ্যবাধকতা থাকছে- জনসাধারণকে অবশ্যই বাইরে গেলে মাস্ক পরতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালন নিশ্চিতে সারা দেশে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হবে। রেস্তোরাঁয় বসে খাবার গ্রহণ ও আবাসিক হোটেলে থাকার জন্য অবশ্যই টিকা সনদ দেখাতে হবে। উন্মুক্ত স্থানে সর্ব সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয় অনুষ্ঠান এবং সমাবেশ পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত বন্ধ রাখতে হবে। এ ছাড়াও আরো বিধিনিষেধ রয়েছে যা সংশ্লিষ্টদের মানতে হবে।
করোনা মহামারি প্রতিরোধে ১১ দফার বিধিনিষেধ মানার অন্য কোনো বিকল্প নেই। এর কোনো ব্যত্যয় ঘটলে পরিস্থিতি যে নাগালের বাইরে চলে যেতে পারে সে আশংকা আছে। কেননা যেভাবে ওমিক্রন সংক্রমণ বাড়াচ্ছে সেটা উদ্বেগের কারণ। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্যমতে, বুধবার সকাল পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ২ হাজার ৯১৬ জনের মধ্যে সংক্রমণ ধরা পড়েছে, যা আগের দিনের চেয়ে ১৯ শতাংশ বেশি। একদিনে এর চেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছিল গত বছরের ৩ সেপ্টেম্বর, সেদিন ৩ হাজার ১৬৭ জনের মধ্যে সংক্রমণ ধরা পড়েছিল।
প্রতিবেশি দেশ ভারতে সংক্রমণের গতি বাংলাদেশের চেয়ে আরো বেশি। ওমিক্রনের দাপটের মধ্যে ভারতে দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দুই লাখের কাছাকাছি পৌঁছে গেছে। মঙ্গলবার মোট ১ লাখ ৯৪ হাজার ৭২০ জন নতুন কোভিড রোগী শনাক্তের খবর দিয়েছে ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, যা আগের দিনের চেয়ে ১৫ দশমিক ৮ শতাংশ বেশি। এর মধ্য দিয়ে মহামারীর পুরো সময়ে ভারতে শনাক্ত কোভিড রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ৬০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। ইউরোপেও ওমিক্রন মহামারিরূপে দেখা দিয়েছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা সতর্ক করে দিয়ে বলেছে, ইউরোপের অর্ধেক মানুষই ৬ থেকে ৮ সপ্তাহের মধ্যে করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রন সংক্রমিত হবে।
পরিস্থিতি যে মোটেও স্বস্তিদায়ক কিছু নয় তা এসব তথ্যই বলে দেয়। বরং মারণঘাতি করোনার নতুন ধরন ওমিক্রন মারাত্মকভাবে সংক্রমণ ঘটিয়ে যাচ্ছে। গত সাত দিনে দেশে করোনার সংক্রমণ প্রায় দ্বিগুণ হয়ে গেছে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। অর্থাৎ পরিস্থিতিটা মোটেও উপেক্ষা করার মত বিষয় নয়। বরং এই তাগিদ জাতির সামনে যে, নিষ্ঠার সাথে স্বাস্থ্য সুরক্ষা মেনে চলা ছাড়া অন্য কোনো গত্যন্তর নয়। টিকাকরণের পাশাপাশি স্বাস্থ্য সুরক্ষায় অধিক মনোযোগী হওয়ার সময় এখন। সরকার যে ১১ টি বিধিনিষেধ দিয়েছে- এটা সব নাগরিকের মেনে চলা কর্তব্য-কাজ মানতে হবে। এ বিপদ প্রতিটি মানুষের। মানুষের সম্মিলিত প্রচেষ্টাতেই এই মারণঘাতি মহামারি করোনা সংক্রমণ থেকে নিজেদের সুরক্ষা দিতে হবে। বাইরে বেরুলে সবাইকে মাস্ক অবশ্যই পরতে হবে। সরকারের দেয়া বিধিনিষেধ আজ থেকে কার্যকর হচ্ছেÑ তা সকলকে মেনে চলতে হবে। কোনোভাবেই কোনো অসতর্কতায় সংক্রমণ ঝুঁকিকে অবজ্ঞা করা সমীচীন হবে না।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ