১১ নির্দেশনা মেনে বসতে হবে এইচএসসি পরীক্ষায়

আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২১, ৯:০১ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


করোনা মহামারির অভিঘাত সবচেয়ে বেশি পড়েছে দেশের শিক্ষাব্যবস্থায়। টানা প্রায় দেড় বছর সব স্তরের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার পর সংক্রমণ পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হওয়ায় ধীরে ধীরে স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়া হচ্ছে। বাড়ানো হচ্ছে ক্লাসের সময় ও সংখ্যা। এরই ধারাবাহিকতায় আগামী ২ ডিসেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে এ বছরের এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা। শেষ হবে ৩০ ডিসেম্বর। সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) এ সংক্রান্ত সূচি প্রকাশ করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

কোভিড-১৯ এর বিরূপ সময়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে স্বাস্থ্যসুরক্ষা নিশ্চিত করতে স্বাস্থ্যবিধি মানাসহ এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের জন্য ১১ দফা নির্দেশনা দিয়েছে মন্ত্রণালয়।

১১ দফা নির্দেশনাগুলো হলো-
১. কোভিড-১৯ মহামারির কারণে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।
২. পরীক্ষা শুরুর ৩০ (ত্রিশ) মিনিট আগে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষাকক্ষে নিজ নিজ আসনে বসতে হবে।
৩. প্রথমে বহুনির্বাচনী ও পরে সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়) পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।
৪. পরীক্ষার সময় ১ ঘণ্টা ৩০ মিনিট। এমসিকিউ এবং সিকিউ অংশের পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না। সকাল ১০টা থেকে অনুষ্ঠেয় পরীক্ষার ক্ষেত্রে সকাল ৯টা ৩০ মিনিটে অলিখিত উত্তরপত্র ও বহুনির্বাচনী ওএমআর শিট বিতরণ, সকাল ১০টায় বহুনির্বাচিনী প্রশ্নপত্র বিতরণ, সকাল ১০টা ১৫ মিনিটে বহুনির্বাচনী উত্তরপত্র (ওএমআর শিট সংগ্রহ ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্র বিতরণ। দুপুর ২টা থেকে অনুষ্ঠেয় পরীক্ষার ক্ষেত্রে দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে অলিখিত উত্তরপত্র ও বহুনির্বাচনী ওএমআর শিটট বিতরণ, দুপুর ২টায় বহুনির্বাচনী প্রশ্নপত্র বিতরণ, আর দুপুর ২টা ১৫ মিনিটে বহুনির্বাচনী (ওএমআর শিট) উত্তরপত্র সংগ্রহ ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্র বিতরণ।
তথ্যসূত্র: জাগোনিউজ