৪ শতাংশ সুদে ঋণ পাবেন কৃষকরা

আপডেট: নভেম্বর ১৭, ২০২২, ১০:১৩ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ ব্যাংক: ফাইল ফটো

সোনার দেশ ডেস্ক :


দেশের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ৫ হাজার কোটি টাকার পুনঃঅর্থায়ন স্কিম গঠন করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এ স্কিম থেকে সর্বোচ্চ ৪ শতাংশ সুদে ঋণ পাবেন কৃষক।

বৃহস্পতিবার (১৭ নভেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের কৃষি ঋণ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করে সব বাণিজ্যক ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো হয়েছে।

সার্কুলারে বলা হয়, খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কৃষি খাতের জন্য পুনঃঅর্থায়ন নামে এ তহবিলের অধীনে ব্যাংকগুলো নিজস্ব নেটওয়ার্কের মাধ্যমে ঋণ বিতরণ করবে। ক্ষুদ্র, প্রান্তিক, বর্গা চাষি ও ফসল (ধান, শাক-সবজি, ফুল ও ফল ) চাষের জন্য সর্বোচ্চ ২ লাখ টাকা পর্যন্ত ঋণ বিতরণ করতে পারবে। ঋণ পরিশোধে কৃষক বা গ্রাহক তিন মাসের গ্রেস পিরিয়ডসহ ১৮ মাস সময় পাবেন। এ তহবিলের ঋণ কোনোভাবেই গ্রাহকের পুরোনো ঋণের সমন্বয় করতে পারবে না।

সার্কুলারে আরও বলা হয়, খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কৃষি খাতের জন্য পুনঃঅর্থায়ন স্কিমটির আকার ৫ হাজার কোটি টাকা। বাংলাদেশ ব্যাংকের নিজস্ব অর্থায়নে গঠিত এ স্কিমটির মেয়াদ ২০২৪ সালের জুন পর্যন্ত। প্রয়োজনে তহবিলের অর্থের পরিমাণ ও মেয়াদ বাড়ানো হবে।
কৃষি ও পল্লী ঋণ নীতিমালার আওতাভুক্ত ব্যাংকগুলো বাংলাদেশ ব্যাংকের কৃষি ঋণ বিভাগের সঙ্গে একটি অংশগ্রহণ চুক্তির মাধ্যমে এ সুবিধা নিতে পারবেন। এসব ব্যাংক চাহিদা, কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণের লক্ষ্যমাত্রা, ঋণ বিতরণের সক্ষমতার উপর ভিত্তি করে কৃষি ঋণ বিভাগ তহবিল বরাদ্দ করবে। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কাছ থেকে দশমিক ৫০ শতাংশ সুদে অর্থ নিয়ে কৃষক পর্যায়ে সর্বোচ্চ ৪ শতাংশ সুদে ঋণ বিতরণ করবে ব্যাংকগুলো। বাংলাদেশ ব্যাংক প্রয়োজনবোধে বরাদ্দকৃত তহবিলের পরিমাণ পুনর্র্নিধারণ করতে পারবে।

করোনায় দেশে দেশে খাদ্য উৎপাদন ও সরবরাহে বিঘ্ন ঘটে। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে পরিস্থিতি আরও অবনতি হয়। মূল্য বেড়ে যায় খাদ্যের। এখনো উচ্চ খাদ্যমূল্য পরিস্থিতি বিরাজ করছে। আগামীতে খাদ্যমূল্য আরও বৃদ্ধির সম্ভাবনা রয়েছে। এ অবস্থায় সরকার খাদ্য উৎপাদনে অধিকতর গুরুত্ব দিচ্ছে। সরকারের খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধি কার্যক্রম বাস্তবায়নে বাংলাদেশ ব্যাংক কৃষক পর্যায়ে ৪ শতাংশ সুদ হারে কৃষি ঋণ বিতরণের জন্য এ স্কিম গঠন করেছে।
তথ্যসূত্র: বাংলানিউজ