ইউনিলিভারের উদ্যোগে রুয়েটে ‘লার্ন টু লিড’ শীর্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

আপডেট: মে ২১, ২০২৪, ৮:৩১ অপরাহ্ণ


রাবি প্রতিবেদক:


উন্নত হচ্ছে প্রযুক্তির ধারা, বৃদ্ধি পাচ্ছে প্রকৌশলীদের দক্ষতা, প্রসারিত হচ্ছে তাদের কাজের পরিধি। বর্তমান সময়ের প্রেক্ষাপটে শিল্প প্রতিষ্ঠান সমূহে প্রকৌশলীদের কাজের ক্ষেত্র ও তাদের ভবিষ্যত কাজের দিকনির্দেশনা নিয়ে ২০ মে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (রুয়েট) অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘লার্ন টু লিড’ শীর্ষক কর্মশালা। সেমিনারটি আয়োজন করে ইউনিলিভার বাংলাদেশ এবং ক্লাব পার্টনার হিসেবে সহযোগীতা করে ‘রুয়েট আইপিই ক্লাব’।

আয়োজকরা জানান, ইউনিলিভার বাংলাদেশ তাদের শিল্পভিত্তিক জ্ঞানকে ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে ছড়িয়ে দিতে পরিচালনা করে থাকে ‘লার্ন টু লিড’ ইভেন্টটি। তারই ধারাবাহিকতায় প্রায় ২০০ শিক্ষার্থী এবং শিক্ষকদের অংশগ্রহণে সফলভাবে রুয়েটে অনুষ্ঠিত হলো এটি। যেখানে প্রথম বর্ষ থেকে শুরু করে সকল বর্ষের শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করার সুযোগ পেয়েছে।

ইউনিলিভারের পক্ষ হতে নাবিল ইমরান সিদ্দিকী সাপ্লাই চেইন এবং এর সংশ্লিষ্ট বিষয়ে আলোচনা করেন। ইফতেখার আনাম এবং শেখ আবদুল্লাহ আল সাইদ আলোচনা করেন তাদের অভিজ্ঞতা এবং দেন বাস্তবমুখী নানান দিকনির্দেশনা। এছাড়াও, সরফরাজ জব্বার এবং লামিয়া বিনতে হাকিম ইউনিলিভারে ইঞ্জিনিয়ারদের ভূমিকা ও তাদের ক্যারিয়ার নিয়ে আলোচনা করেন।

ইভেন্ট শেষে কথা হয় আইপিই বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী মাহদী এর সঙ্গে। তিনি বলেন, আমার কাছে এই ইভেন্টটির অভিজ্ঞতা দারুণ। এখানে এসে আমি বুঝতে পেরেছি, শিল্প কারখানায় আমাদের কী ধরনের দায়িত্ব পালন করতে হবে। আরো জেনেছি, ক্যারিয়ারে নানান চড়াই উৎরাই এর গল্প। প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী হিসেবে এসব আমি আগে জানতাম না, এ অভিজ্ঞতা আমাকে আগামী দিনে নানান ভাবে সহযোগীতা করবে।

রুয়েট আইপিই ক্লাবের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক দীপায়ান সাহা বলেন, আমরা মনে করি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি শিক্ষার্থীর জন্য কমিউনিকেশন ব্যবস্থা উন্নত করা, নিজেদের স্কিল ডেভেলপ করা জরুরি। আর এই লক্ষ্যকে সামনে রেখেই রুয়েট আইপিই ক্লাব নানান ধরনের ইভেন্টের ব্যবস্থা করে থাকে। আজকের এই ইভেন্ট শিক্ষার্থীদের নানান বাস্তবমুখী অভিজ্ঞতার সম্মুখীন করেছে, যার শিক্ষার্থীদের প্রতিভাকে শানিত করবে।

ইভেন্টের ব্যাপারে রুয়েট ছাত্র কল্যাণ দপ্তরের পরিচালক ও পুরকৌশল অনুষদের ডিন ড. মো. কামরুজ্জামান বলেন, রুয়েট আগামী দিনগুলোতে ইন্ডাস্ট্রি ভিত্তিক জ্ঞানকে আরো দক্ষতার সাথে ব্যবহার করবে। বিগত দিনগুলোতেও রুয়েটের ছাত্ররা তাদের সাফল্য দেখিয়েছে, আগামী দিনগুলোতে এটি আরো প্রসারিত হবে।

এই ইভেন্টটিতে কমিউনিকেশন স্কিল, কর্মজীবনে এবং শিক্ষাজীবনে সংঘবদ্ধ কাজ করার দক্ষতা, সিদ্ধান্ত গ্রহণ এর দক্ষতাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করা হয়েছে। যেখানে ইউনিলিভার এর সাথে ক্যারিয়ার গড়ার সুযোগের বিষয়টিও উঠে এসেছে। ইভেন্টের একদম শেষে ছিলো উন্মুক্ত প্রশ্নোত্তর পর্ব যেখানে শিক্ষার্থীরা তাদের নানান প্রশ্নের মাধ্যমে কর্মজীবনের জন্য বাস্তব জ্ঞান এবং শিক্ষার্থী হিসেবে এখন থেকেই কিভাবে নিজেকে দক্ষ হিসেবে গড়ে তোলা যায়, সেই বিষয়ে জানতে পেরেছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ