নাটোরে মেছো বাঘকে পিটিয়ে হত্যা

আপডেট: জানুয়ারি ২৯, ২০২২, ১০:৪৩ অপরাহ্ণ

নাটোর প্রতিনিধি:


নাটোরে একটি মেছো বাঘকে পিটিয়ে হত্যা করার পর গাছের সাথে ঝুলিয়ে রাখে গ্রামবাসী। বিষয়টি গণমাধ্যম কর্মীরা জানানোর পর বনবিভাগকে জানালেও গুরুত্ব দেয়নি নাটোর বনবিভাগ। তাদের উদাসীনতার কারণে বন্যপ্রাণী হত্যায় উৎসাহিত হচ্ছে সাধারণ মানুষ। পরে বন বিভাগের একজন কর্মচারি পাঠিয়ে মৃত বাঘটি উদ্ধার করে রাজশাহী বন্যপ্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগে হস্তান্তর করা হয়।

এলাকাবাসী জানায়, শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) রাত ৮টার দিকে নাটোর সদর উপজেলার কৈগাড়ি এলাকার মিরাজ আলীর হাঁসের খামারে আক্রমণ করে একট মেছো বাঘ। এ সময় খামার মালিকসহ এলাকার লোকজন বাঘটিকে ঘিরে ফেলে এবং পিটিয়ে হত্যা করে গাছের সাথে ঝুলিয়ে রাখে। বিষয়টি গণমাধ্যম কর্মীরা নাটোর বনবিভাগকে জানেলেও তারা কর্ণপাত করেনি।

পরে শনিবার নাটোর বনবিভাগের কর্মচারি রফিকুল ইসলামকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়। সকালে ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃত বাঘটি উদ্ধার করে নিয়ে আসে এবং ভবিষ্যতে এভাবে বন্যপ্রাণী হত্যা না করার অনুরোধ জানিয়ে আসে। পরে বাঘটি রাজশাহী বন্যপ্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগে হস্তান্তর করা হয়েছে।

তিনি জানান, এই এলাকায় আরও বাঘ থাকতে পারে। তাই ভবিষ্যতে সেগুলো বের হলে না মারার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।
এদিকে শনিবার (২৯ জানুয়ারি) ছুটির দিন হওয়ায় কোনো কর্মকর্তা সেখানে যাননি। এমনকি বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে কোনো কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করাও সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় বনবিভাগের পক্ষ থেকে কোনো মামলা দায়ের করা হয়নি বলেও জানা গেছে।