মানুষের কল্যাণে সততার সাথে কাজ করতে চাই : মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপসচিব

আপডেট: মে ২১, ২০২২, ৯:২৩ অপরাহ্ণ

মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব রথীন্দ্রনাথ দত্ত

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি:


সীমিত সাধ্যের মধ্যে মানুষের কল্যাণে কাজ করতে চাই। আমার কোন রাজনৈতিক বিলাস নেই। তবে প্রতিটি দপ্তরকে সততা এবং নিষ্ঠার সাথে কাজ করতে হবে। গত কয়েক বছর আগে দেশে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধায় ভরে ছিল। সততা এবং নিষ্ঠার সাথে কাজ করায় ৪৫ হাজার ভুয়া মুক্তিযোদ্ধার নাম তালিকা থেকে বাদ পড়েছে। সততার সাথে কাজ করলে মূল্যায়িত হতেই হবে।

শনিবার (২১ মে) সকালে বাঘা উপজেলা শিক্ষক সমিতির কার্যালয়ে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব রথীন্দ্রনাথ দত্ত এ কথা বলেছেন।

আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সমিতির সভাপতি আনজারুল ইসলাম। বাঘা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সুনিত কুমার দেবনাথের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন রুস্তমপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আনারুল হক বারিন, পৌর আ’লীগের বাঘা পৌর আ.লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক কামাল হোসেন, বাঘা প্রেসক্লাবের সভাপতি আব্দুল লতিব মিঞা, সাধারণ সম্পাদক নুরুজ্জামান, জাতীয় সাংবাদিক সংস্থার উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক লালন উদ্দিন, উপজেলা পূজা উৎযাপন কমিটির সভাপতি অশীত কুমার বাকু পান্ডে, সাধারণ সম্পাদক অপূর্ব কুমার সাহা, শিক্ষক গোলাম মোস্তফা প্রমুখ।

রথীন্দ্রনাথ আরো বলেন, যার যেটা প্রাপ্য তাকে সেটা দেয়া উচিত। কিন্ত সব ক্ষেত্রে সেটি বাস্তবায়ন হয় না। রাজনীতি, সংস্কৃতি, শিক্ষানীতি, যুবনীতি সবকিছুর পেছনে যেমন অর্থনৈতিক মুক্তির আকাঙ্খা প্রতিয়মান। তদরুপ সম্মান, পুরস্কার প্রাপ্তি, খ্যাতি, ক্ষমতা ও ভাল কাজের স্বীকৃতির মূলে কাজ করে একজন অফিসারের সততা ।

আমার উদাহারণ আমি নয়, আমার উদাহারণ আমি যে সব এলাকায় চাকরি করেছি সেইসব এলাকার মানুষ। যারা এখনও আমাকে প্রতিনিয়ত স্মরণ করেন। আমি তাঁদের প্রতি কৃতজ্ঞ।
উল্লেখ্য, গত তিনদিন ব্যাপী হিন্দু সম্প্রদায়ের ২৪ প্রহর ব্যাপী মহানাম যজ্ঞানুষ্ঠান উপলক্ষে ছুটি নিয়ে নিজ গ্রাম বাঘা উপজেলার নারায়নপুর বাড়িতে আসেন রথীন্দ্রনাথ দত্ত।